PIB Headquarters

কোভিড-১৯ সংক্রান্ত পিআইবি’র প্রাত্যহিক সংবাদ

Posted On: 21 JUN 2020 6:33PM by PIB Kolkata

নয়াদিল্লি, ২১ জুন, ২০২০

 

 


কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের কোভিড-১৯ সংক্রান্ত সর্বশেষ তথ্য; নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যার তুলনায় সুস্থ হয়ে ওঠা ব্যক্তির সংখ্যা ৫০ হাজারেরও বেশি হয়েছে; সুস্থতার হার বেড়ে ৫৫.৪৯ শতাংশ
কোভিড-১৯ এ আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থতার হার ক্রমশ বাড়ছে। এখনও পর্যন্ত দেশে ২ লক্ষ ২৭ হাজার ৭৫৫ জন রোগী সুস্থ হয়েছেন। গত ২৪ ঘন্টায় সুস্থ হয়েছেন ১৩ হাজার ৯২৫ জন। একইভাবে, সুস্থতার হার বেড়ে হয়েছে ৫৫.৪৯ শতাংশ। বর্তমানে দেশে ১ লক্ষ ৬৯ হাজার ৪৫১ জন রোগী চিকিৎসাধীন রয়েছেন। সুস্থ হওয়া ব্যক্তির সংখ্যা নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্তের তুলনায় আজ ৫৮ হাজার ৩০৫ ছাড়িয়ে গেছে। পরীক্ষাগার ও পরীক্ষাগারগুলির পরিকাঠামোর সম্প্রসারণের লক্ষ্যে নিরন্তর প্রয়াসের অঙ্গ হিসাবে সরকারি পরীক্ষাগারের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৭২২ এবং বেসরকারি পরীক্ষাগারের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৫৯। সবমিলিয়ে দেশে পরীক্ষাগারের মোট সংখ্যা ৯৮১। করোনার নমুনা পরীক্ষার সংখ্যাও দৈনিক বাড়ছে। দেশে গত ২৪ ঘন্টায় ১ লক্ষ ৯০ হাজার ৭৩০টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এখনও পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা ৬৮ লক্ষ ৭ হাজার ২২৬।
বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleasePage.aspx?PRID=1633084  – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

ধারাবি-তে ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে সাফল্য; জুনের দ্বিতীয় সপ্তাহে দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা মে মাসের ৪৩ থেকে কমে ১৯
সুপরিকল্পিত, কার্যকর এবং ধারাবাহিক ব্যবস্থা গ্রহণের মাধ্যমে কেন্দ্রীয় সরকার কোভিড-১৯ সংক্রমণ মোকাবিলা ও প্রতিরোধে রাজ্য/কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলির সহায়তায় একাধিক পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। একাধিক রাজ্য সংক্রমণ প্রতিরোধমূলক কৌশলগুলি কার্যকর করেছে এবং ভালো পরিণাম পাওয়া গেছে। একইভাবে, মহারাষ্ট্র সরকার ও বৃহন মুম্বাই পুর নিগমের পক্ষ থেকেও গৃহীত প্রয়াসগুলির ফলে ইতিবাচক পরিণাম মিলেছে। গৃহীত প্রয়াসের অঙ্গ হিসাবে মহারাষ্ট্র সরকার ও বৃহন মুম্বাই পুর নিগম ধারাবি-তে সাফল্যের সঙ্গে ভাইরাস সংক্রমণ ঠেকাতে সক্ষম হয়েছে। নিবিড় জনঘনত্বপূর্ণ এলাকা হিসাবে ধারাবি-তে এপ্রিল মাসে ৪৯১টি সংক্রমণের খবর পাওয়া গেছে। এর পর, পরবর্তী ১৮ দিনে আক্রান্তের সংখ্যা দ্বিগুণ হয়েছে। উদ্বেগজনক এই পরিস্থিতি মোকাবিলায় বৃহন মুম্বাই পুর নিগম একাধিক পন্থা গ্রহণের মাধ্যমে কোভিড সংক্রমণের হার মে মাসের ৪.৩ শতাংশ থেকে জুন মাসে ১.০২ শতাংশে কমিয়ে আনতে সক্ষম হয়েছে। একইভাবে, মে মাসে সংক্রমণের হার দ্বিগুণ হওয়ার সময় ৪৩ দিন থেকে বেড়ে জুন মাসে দাঁড়িয়েছে ৭৮ দিনে।
বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleasePage.aspx?PRID=1633177  – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

ষষ্ঠ আন্তর্জাতিক যোগ দিবস সারা দেশে ডিজিটাল মাধ্যমে উদযাপিত
ষষ্ঠ আন্তর্জাতিক যোগ দিবস সারা দেশে উৎসাহ ও উদ্দীপনায় বৈদ্যুতিন তথা ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে উদযাপিত হয়েছে। এই উপলক্ষে জাতির উদ্দেশে ভাষণে শ্রী নরেন্দ্র মোদী পারিবারিক বন্ধনকে মজবুত করার ক্ষেত্রে যোগের ভূমিকার কথা উল্লেখ করেন। তিনি বলেন, যোগ এমন এক মাধ্যম, যা শিশু ও বয়স্ক সহ পরিবারের প্রত্যেক সদস্যের মধ্যে বন্ধনকে সুদৃঢ় করে এবং পরস্পরকে আরও নিকট করে তোলে। এই কারণেই এবারের যোগ দিবসের মূল ভাবনা হিসাবে ‘পরিবারের সঙ্গে যোগচর্চা’কে অগ্রাধিকার দেওয়া হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, কোভিড-১৯ মূলত মানবদেহের শ্বাস-প্রশ্বাসের সঙ্গে যুক্ত অঙ্গগুলিকে আক্রমণ করে। তাই, শ্বাস-প্রশ্বাস ব্যবস্থাকে আরও শক্তিশালী করার ক্ষেত্রে প্রাণয়ম অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। তিনি বলেন, “আমরা যদি স্বাস্থ্য ও প্রত্যাশার তরঙ্গের মধ্যে সামঞ্জস্য খুঁজে পাই, তা হলে সেদিন খুব বেশি দূরে নেই, যখন সমগ্র বিশ্ব সুস্থ-সবল ও আনন্দমুখর মানবজাতির সাফল্য প্রত্যক্ষ করবো। তাই, যোগচর্চা এরকম এক আনন্দমুখর বিশ্ব-পরিবেশ গড়ে তুলতে আমাদের সাহায্য করতে পারে”।
বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleasePage.aspx?PRID=1633083  – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

আন্তর্জাতিক যোগ দিবস উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর ভাষণের মূল অংশ
বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleasePage.aspx?PRID=1633041  – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

আন্তর্জাতিক যোগ দিবসে জাতির উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রীর ভাষণ; যোগ দিবস সংহতি ও সার্বজনীন সৌভ্রাতৃত্ববোধ উদযাপনের দিবস : প্রধানমন্ত্রী
প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদী আজ ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক যোগ দিবস উদযাপনের মাধ্যমে জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, আন্তর্জাতিক যোগ দিবস সংহতির দিবস। এই দিবস সার্বজনীন সৌভ্রাতৃত্ববোধের বিশ্ব জুড়ে কোভিড-১৯ এর দরুণ স্বাস্থ্য ক্ষেত্রে আপৎকালীন পরিস্থিতির জন্য এ বছরের আন্তর্জাতিক যোগ দিবস ডিজিটাল ও বৈদ্যুতিন প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে আয়োজন করা হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী মোদী বলেন, সাধারণ মানুষ বাড়িতেই সমগ্র পরিবারের সঙ্গে যোগাভ্যাসে সামিল হয়েছেন।
বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleasePage.aspx?PRID=1633066  – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

অনলাইন পঠন-পাঠন কর্মসূচিতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলিকে যোগ শিক্ষা অন্তর্ভুক্ত করার আহ্বান জানালেন উপ-রাষ্ট্রপতি
উপ-রাষ্ট্রপতি শ্রী এম ভেঙ্কাইয়া নাইডু কোভিড-১৯ জনিত উদ্ভূত পরিস্থিতির প্রেক্ষিতে অনলাইন পঠন-পাঠন কর্মসূচির অঙ্গ হিসাবে যোগ শিক্ষাকে অন্তর্ভুক্ত করার জন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলির প্রতি আবেদন জানিয়েছেন। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, কোভিড ভাইরাসের বিরুদ্ধে রোগ-প্রতিরোধক ক্ষমতা বাড়াতে নিয়মিত যোগাভ্যাস অন্যতম শ্রেষ্ঠ উপায়। শ্রী নাইডু আজ আন্তর্জাতিক যোগ দিবস উদযাপন উপলক্ষে ‘স্পিক ম্যাকে’ সংস্থার আয়োজিত যোগ ও প্রাণয়ম শিবিরে ভাষণ দিচ্ছিলেন। শ্রী নাইডু বলেন, নিঃসন্দেহে সমগ্র বিশ্ব কঠিন সময়ের মধ্য দিয়ে চলেছে।কিন্তু আমরা কোনোভাবেই মহামারীকে আমাদের ওপর প্রভাব বিস্তার করতে দিতে পারি না।
বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleasePage.aspx?PRID=1633068  – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

আন্তর্জাতিক যোগ দিবস উদযাপন উপলক্ষে জনগণকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী শ্রী অমিত শাহ
কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী শ্রী অমিত শাহ আজ আন্তর্জাতিক যোগ দিবস উদযাপন উপলক্ষে জনগণকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। এক বার্তায় শ্রী শাহ বলেছেন, “যোগচর্চা শরীরকে সুস্থ-সবল রাখার চেয়েও আরও বেশি কিছু। যোগ হ’ল এমন এক মাধ্যম, যার সাহায্যে দেহ ও মনের মধ্যে, কাজকর্ম ও চিন্তাভাবনার মধ্যে এবং মনুষ্য ও প্রকৃতির মধ্যে সামঞ্জস্য বজায় রাখা সম্ভব”। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী আরও বলেন, “সমগ্র মানবজাতির কাছে ভারতীয় সংস্কৃতির এক অনন্য উপহার হ’ল যোগ। সমগ্র বিশ্ব যোগকে আপন করে নিয়েছে এবং প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদীর আন্তরিক প্রচেষ্টার ফলে যোগ সারা বিশ্বে স্বীকৃতি পেয়েছে”।
বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleasePage.aspx?PRID=1633076  – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

সংখ্যালঘু বিষয়ক মন্ত্রী শ্রী মুখতার আব্বাস নাকভি সমাজের বিভিন্ন সম্প্রদায়ের মানুষের সঙ্গে নিজ বাস ভবনে যোগচর্চায় অংশ নিলেন
কেন্দ্রীয় সংখ্যালঘু বিষয়ক মন্ত্রী শ্রী মুখতার আব্বাস নাকভি আজ ষষ্ঠ আন্তর্জাতিক যোগ দিবস উদযাপন উপলক্ষে নিজ বাসভবনে সমাজের বিভিন্ন শ্রেণীর মানুষের সঙ্গে যোগাসন করেন। তিনি চলতি কোভিড-১৯ মহামারীর প্রেক্ষিতে বাড়িতে থেকেই পরিবারের সঙ্গে যোগচর্চায় সামিল হওয়ার পক্ষে সওয়াল করেন।
বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleasePage.aspx?PRID=1633129  – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

 



পিআইবি’র আঞ্চলিক কার্যালয় থেকে প্রাপ্ত তথ্য

মহারাষ্ট্র : রাজ্যে গতকাল একদিনেই এ যাবৎ সর্বোচ্চ ৩ হাজার ৮৭৪ জনের করোনায় সংক্রমণের খবর মিলেছে। এর ফলে, আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১ লক্ষ ২৮ হাজার ২০৫। রাজ্যে মৃত্যু হয়েছে ৫ হাজার ৯৮৪ জনের। এখনও পর্যন্ত মোট আক্রান্তের ৫১ শতাংশ এবং মোট মৃত্যুর ৫৯ শতাংশই মুম্বাই থেকে। রাজ্যে ভেন্টিলেটরের সংখ্যা ৩ হাজার ২২৮। ক্রমবর্ধমান আক্রান্তের সংখ্যার প্রেক্ষিতে ভেন্টিলেটরের সংখ্যা যথেষ্ট নয়।

গুজরাট : রাজ্যে আরও ৫৩৯ জনের সংক্রমণের খবর মেলায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২৬ হাজার ৭৩৭। মৃত্যু হয়েছে ১ হাজার ৬৩৯ জনের। এর মধ্যে ১ হাজার ৩১৫ জন মারা গেছেন কেবল আমেদাবাদ থেকেই।

রাজস্থান : রাজ্যে আজ সকাল পর্যন্ত আরও ১৫৪ জনের সংক্রমণের খবর মেলায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১৪ হাজার ৬৯১। এখনও পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ৩৪১ জনের। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী শ্রী অশোক গেহলট এমজিএনআরইজিএ – এর আওতায় বর্তমান কাজের দিন ১০০ থেকে বাড়িয়ে ২০০ দিন করার জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে আবেদন জানিয়েছেন।

মধ্যপ্রদেশ : রাজ্যে আরও ১৪২ জনের সংক্রমণের খবর মেলায় গতকাল পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১১ হাজার ৭২৪। মৃত্যু হয়েছে ৫০১ জনের।

মণিপুর : রাজ্যে ১৪ হাজার ৯৮৩ জন কম্যুনিটি কোয়ারেন্টাইনে রয়েছেন। সরকারি কোয়ারেন্টিয়ানে রয়েছেন ৫ হাজার ৪৩৮ জন।

মেঘালয় : রাজ্যে আরও ৫ জনের নমুনা পরীক্ষার পরিণাম নেগেটিভ এসেছে। অবশ্য, করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪৪। নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৬।

মিজোরাম : রাজ্যের এক সিভিল হাসপাতালে গতকাল যে ১৫টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছিল, তার মধ্যে ১৪টির পরিণাম নেগেটিভ এসেছে। যে ব্যক্তির নমুনায় ভাইরাসের উপস্থিতির প্রমাণ মিলেছে, তাঁকে কোয়ারেন্টিয়ানে রাখা হয়েছে।

নাগাল্যান্ড : ডিমাপুরের জেলাশাসক প্রবাসী শ্রমিকদের জন্য আত্মনির্ভর ভারত অভিযানের সূচনা করেছেন। কোহিমা পুর নিগম ডাস্টবিন এবং যত্রতত্র পড়ে থাকা দস্তানা ও ফেস মাস্ক সম্পর্কে মানুষকে সচেতন করে দিয়েছে।

কেরল : রাজধানী তিরুবনন্তপুরমে কোভিড-১৯ সংক্রান্ত উচ্চ সতর্কতা আরও কঠোর করা হয়েছে। বন্দে ভারত মিশনের অঙ্গ হিসাবে ১ হাজার ৪৯০ জন প্রবাসী আজ কোচি ফিরছেন। রাজ্যে গতকাল একদিনে এ যাবৎ সর্বোচ্চ ১২৭ জনের সংক্রমণের খবর মিলেছে।

তামিলনাডু : কেন্দ্রশাসিত পন্ডিচেরীতে আরও একজনের মৃত্যু হয়েছে এবং নতুন করে ৩০ জনের সংক্রমণের খবর মেলায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৩৬৬। তামিলনাডু’র মুখ্যমন্ত্রী ভাইরাস সংক্রমণ দমনে মানুষের সহযোগিতা চেয়েছেন। রাজ্যে গতকাল পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ৫৬ হাজার ৮৪৫। নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ২৪ হাজার ৮২২। মৃত্যু হয়েছে ৭০৪ জনের। কেবল চেন্নাইয়েই আক্রান্ত সংখ্যা ১৭ হাজার ২৮৫।

কর্ণাটক : রাজ্য সরকার স্থানীয় কর্তৃপক্ষ ও অসামরিক প্রশাসনগুলিকে সকাল ৫টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত সংক্রামিত এলাকার বাইরে থাকা পার্কগুলি খোলার অনুমতি দিয়েছে। এদিকে রাজ্য সরকার ৫১৮টি বেসরকারি মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালকে আয়ুষ্মান ভারত – আরোগ্য কর্ণাটক কর্মসূচির আওতায় নিয়ে এসেছে। রাজ্যে গতকাল আরও ৪১৬ জনের সংক্রমণ এবং ৯ জনের মৃত্যুর খবর মিলেছে। এর ফলে, করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৮ হাজার ৬৯৭। নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৩ হাজার ১৭০। মৃত্যু হয়েছে ১৩২ জনের।

অন্ধ্রপ্রদেশ : করোনা ভাইরাসে সবচেয়ে প্রভাবিত এলাকাগুলিতে লকডাউন কার্যকর করার ব্যাপারে রাজ্য সরকার চিন্তাভাবনা করছে। রাজ্যে গত ২৪ ঘন্টায় আরও ৪৩৯ জনের সংক্রমণের খবর মেলায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৭ হাজার ৫৯। নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ৩ হাজার ৬০০। মৃত্যু ১০৬ জনের।

তেলেঙ্গানা : ড্রাগ কন্ট্রোলার জেনারেল অফ ইন্ডিয়া’র পক্ষ থেকে কোভিড-১৯ চিকিৎসার জন্য রেমডিসভির ওষুধ উৎপাদন ও বিপণনের অনুমতি পেয়েছে হায়দরাবাদ-ভিত্তিক হেটেরো সংস্থা। রাজ্যে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৭ হাজার ৭২। নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩ হাজার ৩৬৩ জন। মৃত্যু হয়েছে ২০৩ জনের।

 



CG/BD/SB



(Release ID: 1633353) Visitor Counter : 10