PIB Headquarters

কোভিড-১৯ সংক্রান্ত পিআইবি’র প্রাত্যহিক সংবাদ

Posted On: 11 MAY 2020 6:15PM by PIB Kolkata

নয়াদিল্লি, ১১ মে, ২০২০

 

 

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের পক্ষ থেকে কোভিড-১৯ সংক্রান্ত সর্বশেষ তথ্য

দেশে এখনও পর্যন্ত ২০ হাজার ৯১৭ জন সুস্থ হয়ে উঠেছেন। এর ফলে, সুস্থতার হার বেড়ে হয়েছে ৩১.১৫ শতাংশ। নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৬৭ হাজার ১৫২। গতকাল থেকে আরও ৪ হাজার ২১৩ জন নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। চিকিৎসা পেশাদারদের কাজের প্রশংসা করে ডঃ হর্ষ বর্ধন বলেছেন, সমগ্র দেশ তাঁদের কাজে, বিশেষ করে গত তিন মাসে কোভিড মোকাবিলায় এরা যে দৃঢ়তার পরিচয় দিয়েছেন, তা প্রশংসার যোগ্য। তিনি আরও একবার দেশবাসীর কাছে আবেদন জানিয়ে বলেন, চিকিৎসক ও স্বাস্থ্য কর্মীদের এক ঘরে করে না রাখা ও তাঁদেরকে নিশানা না করার আহ্বান জানান। বরং স্বাস্থ্য কর্মীদের প্রচেষ্টার প্রশংসা করা প্রয়োজন। তিনি বলেন, কোভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে লড়াই জারি রাখতে চিকিৎসক, নার্স ও স্বাস্থ্য পরিষেবা কর্মীদের জন্য আমাদের শ্রদ্ধা, সহযোগিতা ও সমর্থন প্রয়োজন।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1625787 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

পুণের ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অফ ভাইরোলজি অ্যান্টিবডি নিরূপণের জন্য সম্পূর্ণ দেশজ অ্যালাইজা নমুনা পরীক্ষা পদ্ধতি উদ্ভাবন করেছে : ডঃ হর্ষ বর্ধন

ভারতীয় চিকিৎসা গবেষণা পর্ষদের অধীন পুণের ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অফ ভাইরোলজি কোভিড-১৯ এর অ্যান্টিবডি নিরূপণের জন্য সম্পূর্ণ দেশজ অ্যালাইজা নমুনা পরীক্ষা উদ্ভাবন করেছে। এই প্রতিষ্ঠানের একটি বৈজ্ঞানিক দল সাফল্যের সঙ্গে নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্ত একজন ব্যক্তির নমুনা থেকে সার্স – কভ – ২ ভাইরাস পৃথক করতে সক্ষম হয়েছে। মনে করা হচ্ছে, এই উদ্ভাবন সার্স – কভ – ২ এর সম্পূর্ণ দেশজ চিকিৎসা-পদ্ধতির পথ আরও সুগম করবে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622766 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

কোভিড-১৯ মোকাবিলা সংক্রান্ত পরিস্থিতি পর্যালোচনায় মান্ডোলি কোভিড-১৯ কেয়ার সেন্টার পরিদর্শন করলেন ডঃ হর্ষ বর্ধন

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী ডঃ হর্ষ বর্ধন নতুন দিল্লির মান্ডোলি সংশোধনাগারে কোভিড-১৯ সংক্রমণ মোকাবিলার পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে দেখার জন্য কোভিড কেয়ার সেন্টার পরিদর্শন করেন। আপৎকালীন পরিস্থিতিতে হাসপাতালগুলির প্রস্তুতি বিবেচনায় রেখে মান্ডোলির কোভিড কেয়ার সেন্টারটিকে সম্পূর্ণ রূপে কোভিড কেয়ার সেন্টারে পরিণত করা হয়েছে, যেখানে পর্যাপ্ত সংখ্যায় আইসোলেশন রুম ও শয্যা রয়েছে। ডঃ হর্ষ বর্ধন বলেছেন, নিরন্তর নজরদারি ও কার্যকর প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা সহ সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার পদক্ষেপগুলি কোভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ভারতই লাভবান হবে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622740 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

চিকিৎসাকর্মী ও আধা-চিকিৎসকদের সুষ্ঠু যাতায়াত সুনিশ্চিত করা, সমস্ত বেসরকারি ক্লিনিক, নার্সিংহোম ও পরীক্ষাগার পুনরায় খোলা এবং কোভিড ও কোভিড বহির্ভূত আপৎকালীন পরিস্থিতি মোকাবিলার জন্য রাজ্যগুলিকে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের নির্দেশ

দেশের কয়েকটি রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত আঞ্চলে চিকিৎসা পেশাদার ও আধা-চিকিৎসক কর্মীদের যাতায়াতে যে নিষেধাজ্ঞা বলবৎ করা হচ্ছে, তার প্রেক্ষিতে ক্যাবিনেট সচিব রবিবার ভিডিও কনফারেন্সে এক বৈঠকে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করেন। ক্যাবিনেট সচিবের এই বৈঠক অনুযায়ী, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক সমস্ত রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলকে লিখিতভাবে জনিয়েছে যে, জনস্বাস্থ্যগত প্রয়োজনীয়তা মেটাতে এবং মানুষের জীবন রক্ষায় সমস্ত চিকিৎসা পেশাদারদের সুষ্ঠু যাতায়াত সুনিশ্চিত করতে উপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। চিকিৎসা পেশাদারদের সুষ্ঠু যাতায়াতে যে কোনও ধরনের বাধা-বিপত্তি কোভিড এবং কোভিড বহির্ভূত চিকিৎসা পরিষেবা প্রদানের ক্ষেত্রে বাধা হয়ে উঠতে পারে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622866 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

লকডাউনের পর শিল্প সংস্থায় উৎপাদন পুনরায় চালু করতে এনডিএমএ অনুযায়ী নির্দেশিকা জারি

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক জাতীয় বিপর্যয় ব্যবস্থাপনা আইনের আওতায় লকডাউনের পর শিল্প সংস্থাগুলির উৎপাদন প্রক্রিয়া পুনরায় চালু করার জন্য নীতি-নির্দেশিকা জারি করেছে। রাজ্য সরকারগুলিকে দুর্ঘটনা ঝুঁকি-প্রবণ ইউনিটগুলিতে বিপর্যয় ব্যবস্থাপনা পরিকল্পনা কার্যকর করা এবং শিল্প ইউনিটগুলির প্রস্তুতি খতিয়ে দেখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। আরও বলা হয়েছে, কোভিড-১৯ লকডাউন পরবর্তী সময়ে উৎপাদন প্রক্রিয়া নিরাপদে শুরু করার জন্য আদর্শ পরিচালন প্রণালী অবিলম্বে কার্যকর করতে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622874 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

আটকে পড়া প্রবাসী শ্রমিকদের নিজেদের রাজ্যে বাধা-বিপত্তি ছাড়াই পৌঁছে দিতে শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনগুলির চলাচলে রেলকে সহযোগিতার জন্য রাজ্যগুলিকে নির্দেশ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের

আটকে পড়া প্রবাসী শ্রমিকদের বাস ও শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনের মাধ্যমে নিজ নিজ রাজ্যে পৌঁছে দিতে সমস্ত রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলকে সহায়তা করার জন্য ক্যাবিনেট সচিব গতকাল ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে দেখেছেন। মন্ত্রকের পক্ষ থেকে এক চিঠিতে রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলিকে বলা হয়েছে, প্রবাসী শ্রমিকরা যাতে সড়কপথে বা রেল লাইনের ওপর হেঁটে বাড়ির পথে রওনা না হন, তা সুনিশ্চিত করতে। প্রবাসী শ্রমিকদের সুবিধার্থেই শ্রমিক স্পেশাল ট্রেন ও বাসের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622865 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

ভারতীয় রেল নির্দিষ্ট কিছু যাত্রী পরিষেবা ধীরে ধীরে শুরু করার পরিকল্পনা করছে

ভারতীয় রেল ১২ই মে থেকে যাত্রীবাহী ট্রেন পরিষেবা ধীরে ধীরে পুনরায় চালু করার পরিকল্পনা করছে। প্রাথমিকভাবে ১৫ জোড়া ট্রেন (৩০টি ফিরতি যাত্রা সহ) চালাবে বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছে। বিশেষ যাত্রীবাহী ট্রেন হিসাবে এগুলি নতুন দিল্লি থেকে বিভিন্ন শহরের মধ্যে চালানো হবে। এর পর, রেল পর্যাপ্ত কামরার ওপর নির্ভর করে অন্যান্য রুটেও বিশেষ ট্রেন চালাবে। এই বিশেষ ট্রেনগুলিতে কেবল শীততপ নিয়ন্ত্রিত কামরাই থাকবে। টিকিট কাটা যাবে আইআরসিটিসি-র ওয়েবসাইট বা মোবাইল অ্যাপ থেকে। এজেন্টদের মারফৎ আসন সংরক্ষণে অনুমতি নেই। সর্বাধিক ৭ দিন আগে টিকিট বুক করা যাবে। কোনও আনরিজার্ভ টিকিটে অনুমতি নেই। মূল ভাড়ার সঙ্গে ক্যাটারিং চার্জ অন্তর্ভুক্ত হচ্ছে না। ট্রেনগুলির যাত্রীদের বাধ্যতামূলকভাবে পরীক্ষা করা হবে এবং যাঁদের উপসর্গের লক্ষণ নেই, কেবল তাঁদের সফরের অনুমতি দেওয়া হবে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622963 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

১৫ জোড়া স্পেশাল ট্রেনের সময়সূচি ঘোষণা করলো ভারতীয় রেল

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ তথা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের সঙ্গে আলাপ-আলোচনা করে রেল মন্ত্রক সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে, ১২ই মে থেকে পর্যায়ক্রমে যাত্রীবাহী ট্রেন পরিষেবা ধাপে ধাপে চালু করা হবে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1623014 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

ভারতীয় রেল ১১ মে সকাল ১০টা পর্যন্ত ৪৬৮টি শ্রমিক স্পেশাল ট্রেন চালিয়েছে

দেশের বিভিন্ন প্রান্তে আটকে পড়া প্রবাসী শ্রমিক, পুণ্যার্থী, পর্যটক, ছাত্রছাত্রী এবং অন্যান্য ব্যক্তিদের যাতায়াতের ব্যাপারে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের নির্দেশ অনুযায়ী ভারতীয় রেল শ্রমিক স্পেশাল ট্রেন চালানোর সিদ্ধান্ত নেয়। ভারতীয় রেল ১১ মে পর্যন্ত দেশের বিভিন্ন রাজ্য থেকে ৪৬৮টি শ্রমিক স্পেশাল ট্রেন চালিয়েছে। এই ট্রেনগুলির মধ্যে ৩৬৩টি ট্রেন ইতিমধ্যে গন্তব্যে পৌঁছেছে। ১০৫টি ট্রেন যাত্রাপথে রয়েছে। পশ্চিমবঙ্গ থেকে দুটি ট্রেন সহ উত্তরপ্রদেশ থেকে সর্বাধিক ১৭২টি ট্রেন চালানো হয়েছে। এছাড়াও মধ্যপ্রদেশ থেকে ৩০টি, ওড়িশা থেকে ২৫টি এবং ঝাড়খন্ড থেকে ২২টি ট্রেন পরিষেবা দেওয়া হয়েছে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622861 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

আটকে পড়া শ্রমিকদের দ্রুত নিজ নিজ রাজ্যে পৌঁছে দিতে শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনগুলির চলাচলে রাজ্য নোডাল আধিকারিকদের সঙ্গে পরিস্থিতি পর্যালোচনা করতে ভিডিও কনফারেন্সে বৈঠক করে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক ও রেল মন্ত্রক

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক ও রেল মন্ত্রক আজ সকালে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনে করে প্রবাসী শ্রমিকদের যাতায়াতের বিষয়গুলি খতিয়ে দেখেছে। এই বৈঠকে রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলির নোডাল আধিকারিকরাও অংশ নেন। জানানো হয়েছে যে, ৪৫০টির বেশি ট্রেনে করে কয়েক লক্ষ আটকে পড়া প্রবাসী শ্রমিককে তাঁদের গন্তব্যে পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে। বৈঠকে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়। এ প্রসঙ্গে জানানো হয়, আটকে পড়া শ্রমিকদের দ্রুত গন্তব্যে পৌঁছে দিতে পর্যাপ্ত সংখ্যায় ট্রেন চালানো হবে। আগামী কয়েক সপ্তাহে দৈনিক ১০০টিরও বেশি ট্রেন চালানো হবে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622896 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

ট্রেনে যাত্রীদের যাতায়াতে সুবিধার জন্য আদর্শ কর্মপরিচালন বিধি জারি করলো কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক ট্রেনে যাত্রীদের যাতায়াতের সুবিধার্থে আদর্শ কর্মপরিচালন বিধি জারি করেছে। যে সমস্ত যাত্রীর কাছে কেবল কনফার্ম ই-টিকিট থাকবে, তাঁদের রেল স্টেশনে প্রবেশের অনুমতি দেওয়া হবে। এছাড়াও, যাত্রীদের জন্য বাধ্যতামূলক চিকিৎসা পরিষেবার ব্যবস্থা থাকবে। কোনও রকম উপসর্গ নেই, এমন ব্যক্তিদের ট্রেন সফরে অনুমতি দেওয়া হবে। সফরকালে এবং স্টেশনগুলিতে কঠোরভাবে স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার নীতি-নির্দেশিকা মেনে চলতে হবে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622896 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

ভাইজ্যাক গ্যাস দুর্ঘটনায় রাজ্য সরকারকে সহায়তার জন্য ভারতীয় বায়ুসেনা অত্যাবশ্যক রাসায়নিক পদার্থগুলি অন্যত্র সরিয়ে নিয়ে গেল

অন্ধ্রপ্রদেশ সরকারের শিল্প ও বাণিজ্য দপ্তরের অনুরোধের প্রেক্ষিতে ভারতীয় বায়ুসেনা গ্যাস দুর্ঘটনা পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবিলার জন্য ৮.৩ টন অত্যাবশ্যক রাসায়নিক পদার্থ অন্যত্র সরিয়ে নিয়ে গেছে। কোভিড-১৯ মহামারীর সময় কেন্দ্রীয় সরকারের আপৎকালীন চাহিদা মেটাতে ভারতীয় বায়ুসেনা রাজ্য সরকারগুলিকে সাহায্য করতে অত্যাবশ্যক সামগ্রী পৌঁছে দিচ্ছে। গত ২৫শে মার্চ থেকে বায়ুসেনা ৭০৩ টন অত্যাবশ্যক সামগ্রী পরিবহণ করেছে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1623002 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

কোভিড-১৯ সংক্রান্ত বিষয়ে ছাত্রছাত্রী, শিক্ষক-শিক্ষিকা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলির প্রশ্নের জবাব ও অভিযোগ নিরসনে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন একাধিক পদক্ষেপ নিয়েছে

বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) কোভিড-১৯ মহামারীর প্রেক্ষিতে গত ২৯শে এপ্রিল পরীক্ষা ও শিক্ষাবর্ষ সম্পর্কিত নীতি-নির্দেশিকা জারি করে। সেই অনুসারে, সমস্ত বিশ্ববিদ্যালয়কে ছাত্রছাত্রী, অভিভাবক ও সংশ্লিষ্ট সবপক্ষের সুরক্ষায় বিষয়টিকে বিবেচনায় রেখে পঠন-পাঠন সংক্রান্ত কর্মসূচি প্রণয়নের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়গুলিকে পরীক্ষা ও পঠন-পাঠন সংক্রান্ত প্রশ্নের জবাব দেওয়ার জন্য পড়ুয়াদের স্বার্থে বিশেষ একটি সেল গঠনের অনুরোধ করা হয়েছে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622869 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

ওডিশার কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের জন্য বিশেষ পুনর্বাসন পরিষেবা সংক্রান্ত ‘ভরোসা’ হেল্পলাইনের সূচনা করলেন কেন্দ্রীয় মানবসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রী

কেন্দ্রীয় মানবসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রী শ্রী রমেশ পোখরিয়াল ‘নিশাঙ্ক’ কোভিড-১৯ মহামারীর সময় ছাত্রছাত্রীদের ওপর থেকে মানসিক চাপ কমাতে ওডিশা কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়াদের জন্য ‘ভরোসা’ নামে একটি হেল্পলাইনের সূচনা করেছেন। এই হেলপ্লাইন নম্বরটি হ’ল – 08046801010. এই উপলক্ষে শ্রী নিশাঙ্ক বলেন, ঘাতক কোভিড-১৯ মহামারীর জন্য সমগ্র দেশ কঠিন সময়ের মধ্য দিয়ে চলছে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1623012 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

টিকা, চিকিৎসা-পদ্ধতি, থেরাপেটিক ও অন্যান্য প্রযুক্তিগত ক্ষেত্রে তহবিল যোগানোর জন্য জৈব প্রযুক্তি দপ্তরের জৈব প্রযুক্তি শিল্প গবেষণা সহায়তা পরিষদ কোভিড-১৯ সংক্রান্ত গবেষণার জন্য ৭০টি প্রস্তাব অনুমোদন করেছে

টিকা, চিকিৎসা-পদ্ধতি, থেরাপেটিক ও অন্যান্য প্রযুক্তিগত ক্ষেত্রে তহবিল যোগানোর জন্য জৈব প্রযুক্তি দপ্তরের জৈব প্রযুক্তি শিল্প গবেষণা সহায়তা পরিষদ কোভিড-১৯ সংক্রান্ত গবেষণার জন্য ৭০টি প্রস্তাব অনুমোদন করেছে। উদ্দেশ্য হ’ল – সার্স – কভ – ২ ভাইরাসের বিরুদ্ধে সুরক্ষিত ও কার্যকর বায়োমেডিকেল সমাধানসূত্র আবিষ্কার করা। এই ৭০টি প্রস্তাবের মধ্যে ১০টি টিকা সংক্রান্ত, ৩৪টি চিকিৎসা-পদ্ধতি সংক্রান্ত এবং ২টি ওষুধপত্র উদ্ভাবন সংক্রান্ত গবেষণা কর্মসূচি রয়েছে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622757 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

নৌ-বাহিনীর যুদ্ধ জাহাজ জলস্বা করে মালদ্বীপে আটকে পড়া ভারতীয়দের কোচি নিয়ে আসা হয়েছে

নৌ-বাহিনীর সমুদ্র সেতু অভিযানের অঙ্গ হিসাবে বাহিনীর জাহাজ জলস্বার সাহায্যে মালদ্বীপে আটকে পড়া ৬৯৮ জন ভারতীয় নাগরিককে গতকাল সকাল ১০টা নাগাদ কোচিতে নিয়ে আসা হয়েছে। এই ভারতীয় নাগরিকদের মধ্যে মহিলা, বয়স্ক ব্যক্তি ও শিশুরা রয়েছে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622791 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

সমুদ্র সেতু অভিযান – ভারতীয় নাগরিকদের নিয়ে মালে থেকে নৌ-বাহিনীর যুদ্ধ জাহাজ মগর রওনা হয়েছে

মালদ্বীপে আটকে পড়া ভারতীয় নাগরিকদের উদ্ধারে নৌ-বাহিনীর দ্বিতীয় যুদ্ধ জাহাজ মগর ইতিমধ্যেই ভারতের উদ্দেশে যাত্রা শুরু করেছে। সমুদ্র সেতু কর্মসূচির অঙ্গ হিসাবে ভারতীয় নৌ-বাহিনী বিভিন্ন দেশে আটকে পড়া ভারতীয় নাগরিকদের উদ্ধারে যে উদ্যোগ নিয়েছে, তার অঙ্গ হিসাবে ইতিমধ্যেই প্রথম পর্যায়ে মালদ্বীপ থেকে ৬৯৮ জন ভারতীয় নাগরিককে দেশে ফিরিয়ে আনা হয়েছে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622776 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

কৃষিজ পণ্য বিপণনের জন্য ১০টি রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের ১৭৭টি নতুন কৃষি বাজার ই-জাতীয় কৃষি বাজার প্ল্যাটফর্মে যুক্ত হয়েছে

কেন্দ্রীয় কৃষি ও কৃষক কল্যাণ মন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র সিং তোমর আজ ই-জাতীয় কৃষি বাজার প্ল্যাটফর্মে আরও ১৭৭টি নতুন কৃষি বাজার আনুষ্ঠানিক অন্তর্ভুক্তি করেছে। এ প্রসঙ্গে শ্রী তোমর বলেন, নতুন নতুন বাজার যুক্ত হওয়ার ফলে, ই-জাতীয় কৃষি বাজার প্ল্যাটফর্ম আরও মজবুত হবে এবং কৃষকরা অনলাইনের মাধ্যমে তাঁদের উৎপাদিত ফসল বিক্রির সুবিধা পাবে। আজ যে ১৭৭টি বাজার ই-জাতীয় কৃষি বাজার প্ল্যাটফর্মে যুক্ত হয়েছে, তার মধ্যে পশ্চিমবঙ্গের একটি বাজার রয়েছে। ই-জাতীয় কৃষি বাজার প্ল্যাটফর্মে বাজার সংখ্যা বর্তমানে ৯৬২।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622906 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

লকডাউনের মধ্যেই ডালশস্য ও তৈলবীজ সংগ্রহ পুরোদমে চলছে

৯টি রাজ্য থেকে ২ লক্ষ ৭৪ হাজার মেট্রিক টন ছোলা সংগৃহীত হয়েছে। ৫টি রাজ্য থেকে সরষে সংগ্রহের পরিমাণ ৩ লক্ষ ৪০ হাজার মেট্রিক টন। কেবল তেলেঙ্গানা থেকেই সূর্যমুখী বীজ সংগ্রহ হয়েছে ১ হাজার ৭০০ টন। ৮টি রাজ্য থেকে তুর ডাল সংগ্রহের পরিমাণ ১ লক্ষ ৭১ হাজার মেট্রিক টন। গ্রীষ্মকালীন ধান চাষ এলাকার পরিমাণ প্রায় ৩৪ হাজার ৮৭ হাজার হেক্টর। ডালশস্য চাষাবাদের এলাকা প্রায় ১০ লক্ষ ৩৫ হাজার হেক্টর। তৈলবীজ চাষ হচ্ছে ৯ লক্ষ ১৭ হাজার হেক্টর জমিতে। ২০২০-২১ - এ রবি বিপণন মরশুমে ভারতীয় খাদ্য নিগম ২ কোটি ৩৩ লক্ষ ৫১ হাজার মেট্রিক টন গম সংগ্রহ করেছে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622702 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

জাতীয় প্রযুক্তি দিবস উপলক্ষে বিজ্ঞানীদের অভিনন্দন জানালেন প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদী আজ জাতীয় প্রযুক্তি দিবসে সমস্ত বিজ্ঞানী, যাঁরা প্রযুক্তি ও বিজ্ঞানকে কাজে লাগিয়ে মানুষের জীবনে ইতিবাচক পরিবর্তন নিয়ে আসার কাজে যুক্ত রয়েছেন, তাঁদের সকলকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। এক ট্যুইটে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, বিশ্বকে কোভিড-১৯ মুক্ত করার প্রচেষ্টায় প্রযুক্তি বিভিন্নভাবে সাহায্য করছে। করোনা ভাইরাসের মোকাবিলায় যাঁরা অগ্রভাগে থেকে গবেষণা ও উদ্ভাবনে যুক্ত রয়েছেন, তাঁদেরকেও অভিনন্দন জানাই। আসুন, আমরা সকলে এক স্বাস্থ্যকর ও উজ্জ্বল বিশ্বের জন্য প্রযুক্তিকে কাজে লাগাই।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622952 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

ডিআরডিও-র জাতীয় প্রযুক্তি দিবস অনুষ্ঠানে ভারতকে অগ্রণী প্রযুক্তিকারক দেশে পরিণত করার আহ্বান জানালেন প্রতিরক্ষা মন্ত্রী

জাতীয় প্রযুক্তি দিবস উদযাপন উপলক্ষে প্রতিরক্ষা গবেষণা ও উন্নয়ন সংস্থা (ডিআরডিও)-র বিজ্ঞানীদের উদ্দেশে ভাষণে প্রতিরক্ষা মন্ত্রী শ্রী রাজনাথ সিং ভারতকে প্রযুক্তিগত দিক থেকে মহাশক্তিধর দেশে পরিণত করার আহ্বান জানিয়েছেন। শ্রী সিং বলেছেন, প্রতিরক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলি আধুনিক প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে কোভিড-১৯ জনিত চ্যালেঞ্জগুলি মোকাবিলা করে চলেছে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622958 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির মাধ্যমে অর্থনীতির পুনরুজ্জীবনে ভারত উপযুক্ত জায়গায় রয়েছে

কেন্দ্রীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রী ডঃ হর্ষ বর্ধন বলেছেন, কোভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে ভারতের লড়াই নিরবচ্ছিন্নভাবে সঠিক পথে এগিয়ে চলেছে। জাতীয় প্রযুক্তি দিবস উদযাপন উপলক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে ভাষণ দিতে গিয়ে ডঃ হর্ষ বর্ধন একথা বলেন।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622992 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে খাদি ও গ্রামোদ্যোগ কমিশনের কুম্ভকাররা অভিনব পদ্ধতি ব্যবহার করছেন

কোভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে লড়াইয়ে প্রচেষ্টা ক্ষুদ্র বা ছোট হলেও তার গুরুত্ব যেমন রয়েছে, তেমনই প্রত্যাশাও বাড়ায়। রাজস্থানে একটি গ্রামের খাদি ও গ্রামোদ্যোগ কমিশনের কুম্ভকাররা করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে যে অভিনব প্রচারাভিযান গ্রহণ করেছে, তা সকলের দৃষ্টি আকর্ষণ করছে। রাজ্যের বারান জেলার কিষাণগঞ্জ গ্রামের কুম্ভকাররা যে মাটির পাত্র বানিয়েছেন, তাতে করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে অভিনব উপায়ে বার্তা খোদাই করা হয়েছে।

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622984 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

পর্যটন মন্ত্রকের ‘দেখো আপনা দেশ’ ওয়েবইনার সিরিজের সপ্তদশ পর্বে অনুষ্ঠানের বিষয় ছিল নীলা নদীর অনুসন্ধান

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622761 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

দেরাদুন স্মার্ট সিটি কোভিড-১৯ মোকাবিলায় ইন্টিগ্রেটেড কমান্ড অ্যান্ড কন্ট্রোল সেন্টার সহ সি.সি.টি.ভি. এবং লকডাউনের সময় যাতায়াতে অনুমতি দিতে একাধিক ব্যবস্থা নিয়েছে

বিস্তারিত বিবরণের জন্য https://pib.gov.in/PressReleseDetail.aspx?PRID=1622892 – এই লিঙ্কে ক্লিক করুন।

 

 

 

পিআইবি’র আঞ্চলিক কার্যালয় থেকে প্রাপ্ত তথ্য

 

হিমাচল প্রদেশ : দেশের বিভিন্ন অংশে আটকে পড়া যে সমস্ত রাজ্যবাসী রাজ্যে ফিরতে ইচ্ছুক, তাঁদের হিমাচল প্রদেশে ফিরে আসার পর স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হবে এবং বাড়ি ফেরার আগে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে রাখা হবে। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী নোডাল আধিকারিকদের নির্দেশ দিয়ে বলেছেন, যে সমস্ত রাজ্য থেকে হিমাচলীরা নিজ রাজ্যে ফিরতে আগ্রহী, সেই সমস্ত রাজ্যগুলির সঙ্গে নিরন্তর যোগাযোগ রাখতে। তিনি আরও বলেন, ছাত্রছাত্রীদের রাজ্যে ফিরে আসার ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার দেওয়া হবে।

 

পাঞ্জাব : রাজ্যের অর্থ দপ্তর এক বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, কোভিড মহামারীর বিরুদ্ধে লড়াইয়ে যে সমস্ত সরকারি কর্মচারী কর্তব্য পালন করতে গিয়ে জীবন উৎসর্গ করবেন, তাঁদের নিকটাত্মীয়কে এককালীন ৫০ লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়া হবে। এই ক্ষতি পূরণ মিলবে পয়লা এপ্রিল থেকে ৩১শে জুলাই পর্যন্ত সময় যে সমস্ত সরকারি কর্মচারী কোভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে লড়াইয়ে প্রয়াত হবেন। পরবর্তী পরিস্থিতি বিবেচনা করে ক্ষতি পূরণের সময়সীমার মেয়াদ বাড়ানো হতে পারে।

 

হরিয়ানা : রাজ্যে সব্জি বিক্রেতা, স্বাস্থ্য কর্মী, পুলিশ কর্মী, মিডিয়া কর্মী, ফার্মাসিস্ট, স্যানিটেশন কর্মী ও অন্যান্য কয়েকটি ক্ষেত্রের সঙ্গে যুক্ত কর্মীদের নমুনা পরীক্ষার জন্য বিশেষ অভিযান শুরু করা হয়েছে। রাজ্যে কোভিড কেয়ার সেন্টারগুলিকে ২৬ হাজারেরও বেশি কোয়ারেন্টাইন শয্যা এবং হাসপাতাল তথা চিকিৎসা পরিষেবা কেন্দ্রগুলিতে ৮ হাজার ৭৫১টি কোভিড আক্রান্ত রোগীদের জন্য আইসোলেশন শয্যা রয়েছে।

 

· কেরল : ভারতীয় রেল কেরল ও নতুন দিল্লির মধ্যে মঙ্গলবার থেকে সপ্তাহে ৬ দিন ৬টি রাজধানী ট্রেন চালাবে। বন্দে ভারত অভিযানের আওতায় দুবাই ও বাহারিন থেকে দুটি বিমান আজ রাতে কোচি ও কোজিকোড়ে এসে পৌঁছবে। স্টেট বেভারেজ কর্পোরেশন লকডাউনের পর মদের দোকানগুলিতে ভিড় এড়াতে অনলাইনে বিক্রির ব্যবস্থা করছে।

 

· তামিলনাডু : মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, এক সপ্তাহের মধ্যে সমস্ত প্রবাসী শ্রমিককে নিজ নিজ রাজ্যে পাঠানো হবে। এখনও পর্যন্ত বিশেষ ট্রেনগুলিতে ৯ হাজার জনকে পাঠানো হয়েছে। রাজ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা এখন ৭ হাজার ২০৪। নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৫ হাজার ১৯৫। মৃত্যু হয়েছে ৪৭ জনের। কেবল চেন্নাইয়েই আক্রান্ত হয়েছেন ৩ হাজার ৮৩৯ জন।

 

· কর্ণাটক : রাজ্যে আজ আরও ১০ জন নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন। এর ফলে, আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৮৫৮। মৃত্যু হয়েছে ৩১ জনের। লন্ডনে আটকে পড়া ২০০ জন কর্ণাটকবাসী এয়ার ইন্ডিয়ার বিশেষ বিমানে আজ সকালে ব্যাঙ্গালোরে ফিরে এসেছেন। কোভিড সঙ্কটের মধ্যেই বিনিয়োগ আকৃষ্ট করতে রাজ্য সরকার বিশেষ টাস্কফোর্স গঠন করেছে।

 

· অন্ধ্রপ্রদেশ : কোভিড-১৯ সংক্রমণের প্রেক্ষিতে রাজ্যে মদ বিক্রির বিরুদ্ধে দাখিল করা একটি আবেদনের ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে শুনানীতে সম্মত হয়েছে হাইকোর্ট। রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২ হাজার ১৮। নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৯৭৫ জন। মৃত্যু হয়েছে ৪৫ জনের।

 

· তেলেঙ্গানা : মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে আটকে পড়া ১১৮ জন ভারতীয় আজ হায়দরাবাদের রাজীব গান্ধী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসে পৌঁছেছেন। আবুধাবী থেকে আরও একদল ভারতীয়কে নিয়ে এয়ার ইন্ডিয়ার বিমান আজ রাত ৯টা ৩০ মিনিট নাগাদ হায়দরাবাদে এসে পৌঁছবে। রাজ্যে গতকাল পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ১ হাজার ১৯৬। নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪১৫ জন। মৃত্যু হয়েছে ৩০ জনের।

 

· অরুণাচল প্রদেশ : রাজ্যে কোভিড-১৯ নমুনা পরীক্ষার হার বাড়াতে ইন্ডিয়ান মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের অরুণাচল শাখার সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী বৈঠক করেন।

 

· আসাম : রাজ্যের স্বাস্থ্য মন্ত্রী জোড়হাটে কাজিরাঙ্গা বিশ্ববিদ্যালয়ের কোয়ারেন্টাইন কেন্দ্রটি ঘুরে দেখেছেন।

 

· মণিপুর : ট্রেনে করে যে সমস্ত ব্যক্তি রাজ্যে ফিরছেন, তাঁদের জন্য স্বরাষ্ট্র দপ্তরের পক্ষ থেকে বিশেষ নির্দেশিকা জারি।

 

· মণিপুর : রাজ্যের জিরিবাম স্টেশনে আগত যাত্রীদের চিকিৎসা পরিষেবার পর সরকারি বাসে করে কোয়ারেন্টাইন কেন্দ্রগুলিতে নিয়ে যাওয়া হবে।

 

· মিজোরাম : কোভিড-১৯ মুক্ত হওয়ার জন্য মুখ্যমন্ত্রী রাজ্যবাসীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।

 

· নাগাল্যান্ড : রাজ্যে উদ্যান পালন দপ্তরের সঙ্গে সহযোগিতায় ডিআরডিএ ব্যাপক কৃষি কাজ অভিযান গ্রহণ করবে। রাজ্যে ফেরৎ আসা ব্যক্তিদের জন্য পর্যাপ্ত সংখ্যায় কোয়ারেন্টাইনের ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

 

· সিকিম : রাজ্য সরকার ২০২০’র কোভিড সংক্রান্ত জনস্বার্থ ও সুরক্ষাবিধি অবিলম্বে কার্যকর করার বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে। প্রকাশ্য-স্থানে বা কর্মক্ষেত্রে মাস্ক ব্যবহার না করলে বিধি ভঙ্গের দায়ে ৩০০ টাকা জরিমানা করা হবে।

 

· ত্রিপুরা : মহারাষ্ট্রে আটকে পড়া রাজ্যের বাসিন্দাদের ফিরিয়ে আনতে রাজ্য সরকার মুম্বাই থেকে আগরতলা পর্যন্ত শ্রমিক স্পেশাল ট্রেন চালানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

 

· মহারাষ্ট্র : রাজ্যে রবিবার আরও ১ হাজার ২৭৮ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এর ফলে, আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২২ হাজার ১৭১। গত ২৪ ঘন্টায় ৫৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর ফলে, মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৮৩২। বাণিজ্য নগরী মুম্বাইতে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ১৩ হাজার ৫৬৪ এবং এই শহরেই মারা গেছেন ৫০৮ জন।

 

· গুজরাট : রাজ্যে কোভিড-১৯ এ নতুন করে আরও ৩৯৮ জন আক্রান্ত হয়েছেন। এর ফলে, আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৮ হাজার ১৯৫। মৃত্যু হয়েছে ৪৯৩ জনের। গতকাল মৃত্যু হয়েছে ২১ জনের। এর মধ্যে ১৮ জনই মারা গেছেন আমেদাবাদ থেকে।

 

· রাজস্থান : রাজ্যে নিশ্চিতভাবে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৩ হাজার ৯৪০। এর মধ্যে ২ হাজার ২৬৪ জন সুস্থ হয়ে উঠেছেন। মৃত্যু হয়েছে ১১০ জনের। রাজ্যের উপ-মুখ্যমন্ত্রী শ্রী শচীন পাইলট জানিয়েছেন ২২ লক্ষেরও বেশি শ্রমিক এমজিএনআরইজিএ – এর কাজে যুক্ত রয়েছেন।

 

· মধ্যপ্রদেশ : রাজ্যে নতুন করে আরও ১৭২ জনের নমুনায় ভাইরাসের উপস্থিতির প্রমাণ মিলেছে। এর ফলে, আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৩ হাজার ৬৫০। নতুন করে আক্রান্তদের মধ্যে ইন্দোর থেকে ৭৭ জন এবং ভোপাল থেকে ৩০ জন রয়েছেন। আক্রান্তদের মধ্যে ১ জন প্রাক্তন বিধায়ক এবং ৪ জন জুনিয়র চিকিৎসকও রয়েছেন।

 

· গোয়া : উত্তর গোয়া জেলা প্রশাসন জানিয়েছে, কোভিড-১৯ সংক্রান্ত নমুনা পরীক্ষার পরিণাম নেগেটিভ এলেও দেশের বাইরে থেকে আসা ব্যক্তিদের বাধ্যতামূলকভাবে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হবে। নাবিকদের ক্ষেত্রে কোয়ারেন্টাইনের খরচ বহন করবে তাঁদের সংস্থাগুলি। বাকিদের কোয়ারেন্টাইনের খরচ নিজেদেরকেই বহন করতে হবে। সংযুক্ত আরব আমীরশাহী থেকে প্রায় ১০০ জন গোয়ার বাসিন্দা দেশে ফেরার জন্য নাম নথিভুক্ত করেছেন।

 

 

 

CG/BD/SB



(Release ID: 1623132) Visitor Counter : 22