যুবওক্রীড়াবিষয়কমন্ত্রক

কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী শ্রী অনুরাগ ঠাকুর দেশে'র ক্রীড়া ক্ষেত্রের উন্নয়নে রোড ম্যাপ তৈরি করতে রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের ক্রীড়ামন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠক করবেন

Posted On: 19 SEP 2021 4:51PM by PIB Kolkata

নতুন দিল্লি, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২১

 

কেন্দ্রীয় যুব বিষয়ক ও ক্রীড়া মন্ত্রী শ্রী অনুরাগ সিং ঠাকুর আগামীকাল(সোমবার) রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের ক্রীড়া মন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠক করবেন । দেশে খেলাধুলার উন্নয়নে আলোচনা করতেই এই বৈঠক আয়োজন করা হয়েছে । টোকিওতে অলিম্পিক এবং প্যারালিম্পিকে সাফল্যের পর শ্রী ঠাকুর রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে কীভাবে ক্রীড়াক্ষেত্রে আরও উন্নয়ন সম্ভব তা নিয়ে আলোচনা করবেন  । আগামী দিনে ভারতকে ক্রীড়াক্ষেত্রে বিশ্বের শীর্ষ দেশ হিসেবে গড়ে তুলতেই এই পদক্ষেপ । বৈঠকে যুব বিষয়ক ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী নিশীথ প্রামানিক উপস্থিত থাকবেন । কেন্দ্রীয় সরকারের অন্যতম জলকল্যাণমুখী কর্মসূচি হল 'খেলো ইন্ডিয়া' এবং 'ফিট ইন্ডিয়া' । বৈঠকে এই বিষয়গুলি নিয়েও আলোচনা হবে । 

খেলাধুলা রাজ্যের এক্তিয়ারভুক্ত । তবে, গ্রাম ও শহর অঞ্চলকে জুড়ে সামগ্রিকভাবে খেলাধুলার মানোন্নয়নের পাশাপাশি খেলোয়াড়দের শারীরিকভাবে সক্ষম করে তুলতে সরকারের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে । এক্ষেত্রে তৃণমূল পর্যায় থেকেই প্যারা অ্যাথলিটদের পাশাপাশি ক্রীড়া প্রতিযোগীদেরও সনাক্ত করা সম্ভব । তাই বিদ্যালয় পর্যায়ে খেলাধুলার প্রচার এবং স্কুল গেমস ফেডারেশন অফ ইন্ডিয়া (এসজিএফআই)-কে সহযোগিতার বিষয় নিয়েও বৈঠকে আলোচনা হবে । পাশাপাশি রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলিকে ক্রীড়াবিদদের জন্য নগদ আর্থিক পুরস্কারের তহবিল গঠনে অনুরোধ জানানো হবে । এই আর্থিক তহবিল গঠনের ক্ষেত্রে কেন্দ্র এবং রাজ্য উভয়েই সাহায্য করতে পারে । 

২০১৮ সালে প্রথম খেলো ইন্ডিয়া গেমসের আয়োজন করা হয় । এই প্রতিযোগিতা তৃণমূল পর্যায়ে ক্রীড়াক্ষেত্রে অন্যতম গেম চেঞ্জার হয়ে উঠেছে । সেই থেকে যুবদের নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় এবং শীতকালীন খেলাধুলা সহ খেলো ইন্ডিয়া গেমস আয়োজিত হয়ে আসছে । খেলো ইন্ডিয়া কর্মসূচি রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে এমনকি খেলো ইন্ডিয়া স্টেট সেন্টার্স অফ এক্সিলেন্স(কেআইএসসিই) এবং খেলো ইন্ডিয়া সেন্টার্স(কেআইসি) এর ক্ষেত্রে একাধিক ক্রীড়া পরিকাঠামোর উন্নতি সাধনে সাহায্য করেছে । বর্তমানে ২৩টি রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে ২৪টি কেআইএসসিই এবং ৩৬০টি কেআইসি খোলা হয়েছে । আগামীকালের বৈঠকে শ্রী ঠাকুর এই কেন্দ্রগুলির উন্নয়নের বিষয় নিয়েও পর্যালোচনা করবেন । এমনকী ভবিষতের চাম্পিয়নদের সেরা প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা, খেলাধুলায় পরিকাঠামোগত উন্নয়ন, চিকিৎসা সুবিধা সহ একাধিক গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে আলোচনা হবে । 

প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদী ২০১৯ সালে জাতীয় ক্রীড়া দিবসে ফিট ইন্ডিয়া মুভমেন্টের সূচনা করেছিলেন । এরই অঙ্গ হিসেবে ফিট ইন্ডিয়া ফ্রিডম রান, ফিট ইন্ডিয়া মোবাইল অ্যাপ, ফিট ইন্ডিয়া ক্যুইজ প্রতিযোগিতা ইত্যাদির আয়োজন করা হয়েছে। এগুলির বিষয়ে প্রচারের জন্য সংশ্লিষ্ট রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের ক্রীড়া মন্ত্রীদের অনুরোধও জানানো হবে । 

 

CG/SS/RAB



(Release ID: 1756311) Visitor Counter : 40