স্বাস্থ্যওপরিবারকল্যাণমন্ত্রক

ভারত সরকারের টেলিমেডিসিন ই-সঞ্জিবনী পরিষেবায় ১ কোটি ২০ লক্ষ পরামর্শ
দৈনিক প্রায় ৯০ হাজার রোগী স্বাস্থ্য পরিষেবার জন্য ই-সঞ্জিবনী সুবিধা নেন 

Posted On: 21 SEP 2021 10:46AM by PIB Kolkata

নয়াদিল্লি, ২১ সেপ্টেম্বর, ২০২১

 

ভারত সরকারের টেলিমেডিসিন উদ্যোগ ই-সঞ্জিবনী পরিষেবায় ১ কোটি ২০ লক্ষ পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। ধীরে ধীরে এই পরিষেবা দেশের অন্যতম জনপ্রিয় ও বৃহৎ টেলিমেডিসিন উদ্যোগ হয়ে উঠছে। বর্তমানে দৈনিক-ভিত্তিতে প্রায় ৯০ হাজার রোগী এই পরিষেবায় চিকিৎসক ও বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ পাচ্ছেন।

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের জাতীয় টেলিমেডিসিন পরিষেবা ই-সঞ্জিবনী দুটি পদ্ধতিতে চালু রয়েছে। এর একটি হ’ল ই-সঞ্জিবনী আয়ুষ্মান ভারত – রোগী কল্যাণ কেন্দ্র। অপরটি হ’ল সঞ্জিবনী ওপিডি। 

ই-সঞ্জিবনী আয়ুষ্মান ভারত – রোগী কল্যাণ কেন্দ্রের মাধ্যমে প্রায় ৬৭ লক্ষ পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। আয়ুষ্মান ভারত কর্মসূচির মাধ্যমে স্বাস্থ্য ও রোগী কল্যাণ কেন্দ্রগুলিতে এই পরিষেবা পাওয়া যাবে। ২০১৯ সালের নভেম্বর মাসে এই পরিষেবার সূচনা হয়। অন্ধ্রপ্রদেশ দেশের প্রথম রাজ্য, যেখানে এই পরিষেবা চালু হয়। কর্মসূচির সূচনার সময় থেকে বিভিন্ন রাজ্যে ২ হাজারেরও বেশি হাব চালু হয়েছে।

ই-সঞ্জিবনী ওপিডি পরিষেবায় সাধারণ মানুষ কোভিড ও কোভিড বহির্ভূত পরিষেবা পেয়েছেন। দেশে যখন হাসপাতালগুলিতে ওপিডি বা বহির্বিভাগ পরিষেবা বন্ধ হয়ে গিয়েছিল, তখন গত বছরের ১৩ এপ্রিল লকডাউনের সময় এই পরিষেবা শুরু হয়। এখনও পর্যন্ত ৫১ লক্ষেরও বেশি রোগী ই-সঞ্জিবনী ওপিডি থেকে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা পরামর্শ পেয়েছেন। অগ্রণী টার্সিয়ারি পর্যায়ের চিকিৎসা প্রতিষ্ঠান, যেমন – ভাতিন্ডা এইমস্‌, বিবিনগর এইমস্‌, কল্যাণী এইমস্, লক্ষ্ণৌর কিং জর্জ মেডিকেল কলেজ থেকে ই-সঞ্জিবনী ওপিডি-র মাধ্যমে রোগীদের পরিষেবা দেওয়া হচ্ছে।

সরকারের ই-সঞ্জিবনী – জাতীয় টেলিমেডিসিন পরিষেবা শুরু হওয়ার পর শহর ও গ্রামীণ ভারতে ডিজিটাল স্বাস্থ্য ব্যবস্থার ফারাক অনেকাংশে মেটানো সম্ভব হয়েছে। এমনকি, এই পরিষেবার ফলে চিকিৎসক ও বিশেষজ্ঞদের সংখ্যায় ঘাটতি থাকা সত্ত্বেও চিকিৎসা পরামর্শ দেওয়া সম্ভব হয়েছে। জাতীয় ডিজিটাল স্বাস্থ্য মিশনের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে দেশে ডিজিটাল স্বাস্থ্য ব্যবস্থার প্রসারে এই পরিষেবা বড় ভূমিকা নিয়েছে। স্বাস্থ্য মন্ত্রক কোভিডের মতো আপৎকালীন পরিস্থিতি মোকাবিলায় টেলিমেডিসিন পরিষেবার কার্যকারিতা বিবেচনায় রেখে দৈনিক ৫ লক্ষ পরামর্শ দেওয়ার পরিকল্পনা নিয়েছে। 

পশ্চিমবঙ্গ সহ আরও ৯টি রাজ্য ই-সঞ্জিবনী পরিষেবা দেওয়ার ক্ষেত্রে এগিয়ে রয়েছে। পশ্চিমবঙ্গে সোমবার (২০ সেপ্টেম্বর) পর্যন্ত ২ লক্ষ ৭৪ হাজার ৩৪৪টি টেলিমেডিসিন পরামর্শ দেওয়া হয়েছে বলে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক জানিয়েছে। 

 

CG/BD/SB



(Release ID: 1756766) Visitor Counter : 65