কেন্দ্রীয়মন্ত্রিসভা

ভারত ও জাপানের মধ্যে শিক্ষা ও গবেষণা সংক্রান্ত সহযোগিতা ও বিনিময়ের ওপর সমঝোতা পত্র

Posted On: 07 APR 2021 3:54PM by PIB Kolkata

নতুন দিল্লি, ৭ এপ্রিল, ২০২১

 

প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদীর পৌরহিত্যে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার বৈঠকে ভারতের মহাকাশ দপ্তরের ন্যাশনাল অ্যাটমোসফিয়ারিক রিচার্স ল্যাবরেটরি (এনএআরএল) এবং জাপানের কিয়োটো বিশ্ববিদ্যালয়ের রিসার্চ ইনস্টিটিউট ফর সাস্টেনেবল হিউম্যানেস্ফিয়ার (আরআইএসএইচ)-এর মধ্যে ২০২০-র চৌঠা নভেম্বর এবং ১১ নভেম্বর শিক্ষা ও গবেষণামূলক সহযোগিতা ও বিনিময় সংক্রান্ত যে সমঝোতা পত্র স্বাক্ষরিত হয়েছিল, সে বিষয়ে আলোচিত হয়েছে। 

উদ্দেশ্য
•    এনএআরএল ও আরআইএসএইচ-এর মধ্যে পরিবেশ বিজ্ঞান ও পরিবেশ সংক্রান্ত সহযোগিতা এই সমঝোতা পত্রের মাধ্যমে ভবিষ্যতেও বজায় থাকবে। সমঝোতা অনুযায়ী বিভিন্ন গবেষণা কাজে ব্যবহৃত সরঞ্জাম, গবেষণামূলক তথ্যর আদানপ্রদানের পাশাপাশি যৌথভাবে গবেষণা, বৈঠক ও কর্মশালার আয়োজন করা হবে। দুই প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষিকা, ছাত্রছাত্রী ও গবেষকরা অন্য প্রতিষ্ঠানটিতে যাবেন। 
•    এই সমঝোতা পত্রের ফলে জাপানের শিগারাকিতে মধ্য ও উচ্চ বায়ুমণ্ডলের পর্যবেক্ষণের জন্য রাডার, ইন্দোনেশিয়ার কোটাটাব্যাঙ-এ অক্ষীয় পরিবেশগত রাডার এবং আরআইএসএইচ থেকে সহযোগিতামূলক যে সমস্ত সরঞ্জাম পাওয়া যাবে সেগুলি ছাড়াও এনএআরএল-এ ব্যবহৃত সরঞ্জাম ও মেসোস্ফিয়ার – স্ট্র্যাটোস্ফিয়ার – ট্রপোস্ফিয়ার-এর রাডারটি দুটি প্রতিষ্ঠানই ব্যবহার করতে পারবে।  

প্রেক্ষাপট
এনএআরএল ও আরআইএসএইচ পরিবেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ক্ষেত্রে সহযোগিতা করে থাকে। দুটি প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞানীরা অন্য প্রতিষ্ঠানে যান। ২০০৮ সালে স্বাক্ষরিত সমঝোতা পত্রটি ২০২৩ সালে পুনর্নবীকরণ করা হয়। ২০২০-র নভেম্বরে সহযোগিতামূলক গবেষণার জন্য উভয় পক্ষের মধ্যে নতুন করে আরেকটি সমঝোতা পত্র স্বাক্ষরিত হয়েছে।

আরআইএসএইচ পরিবেশগত রাডার নিয়ে যে কাজ করে সেখানে এনএআরএল-এর বিজ্ঞানীরা রিসোর্স পার্সেন হিসেবে যুক্ত থাকেন। কিয়োটো বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ও গবেষকদের একটি দল এনএআরএল সফর করেছেন। তাঁরা গবেষণা ক্ষেত্রে সহযোগিতার জন্য কর্মশালার আয়োজন করেছিলেন।  


CG/CB/SKD/



(Release ID: 1711169) Visitor Counter : 18