নীতিআয়োগ

বিজ্ঞান, প্রযুক্তি, ইঞ্জিনিয়ারিং ও মহাকাশ শিক্ষাকে উৎসাহ এবং পরামর্শ দিতে ইসরো ১০০টি অটল টিঙ্কারিং ল্যাবের দায়িত্ব নিতে চলেছে

Posted On: 11 JAN 2021 3:58PM by PIB Kolkata

নতুনদিল্লি, ১১ই জানুয়ারী ২০২১

 

অটল ইনোভেশন মিশন, নীতি আয়োগ এবং ভারতীয় মহাকাশ গবেষণা সংগঠন ঘোষণা করেছে তারা দেশের বিভিন্ন প্রান্তের একশটি অটল টিঙ্কারিং ল্যাবের দায়িত্ব নেবে।  অনলাইনের মাধ্যমে আজ এক  অনুষ্ঠানে বলা হয়েছে বিজ্ঞান, প্রযুক্তি এবং কারিগরি শিক্ষা ক্ষেত্রে মহাকাশ শিক্ষা এবং মহাকাশ প্রযুক্তি সংক্রান্ত উদ্ভাবন নিয়ে স্কুলের ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে উৎসাহ বাড়াতে এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে ।

  

নীতি আয়োগের ভাইস চেয়ারম্যান  ডক্টর রাজীব কুমার ভার্চুয়ালি এই অনুষ্ঠানে বলেছেন আত্মনির্ভর ভারত গড়ে তোলার লক্ষ্যে কেন্দ্রীয় সরকারের সমস্ত দপ্তর ও মন্ত্রক যে একযোগে কাজ করছে, সেটা দেখে খুব ভালো লাগছে। এরই অংশ হিসেবে নীতি আয়োগ ও ভারতীয় মহাকাশ গবেষণা সংগঠনের আজকের এই উদ্যোগ। এর ফলে আমাদের সম্ভাবনাময়  মহাকাশ সম্পর্কে উৎসাহী ছাত্র ছাত্রীরা এবং  গবেষকদের সুবিধে হবে।

 এই অনুষ্ঠানে ইসরোর চেয়ারম্যান কে শিবান  আশা করেছেন এই পদক্ষেপের ফলে স্কুলের ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে প্রথাগত শিক্ষার পাশাপাশি হাতে কলমে  বিভিন্ন শিক্ষা গ্রহণের উৎসাহ তৈরি হবে।  তিনি বলেছেন এই প্রকল্পটির মাধ্যমে ছাত্রছাত্রীদের মধ্যে স্কুলের পড়াশোনার করার সময়ই গবেষণা করার একটি মানসিকতা তৈরি হবে । আজকের এই সিদ্ধান্তের ফলে একশটি অটল  টিঙ্কারিং ল্যাব যে  বিদ্যালয়গুলির সঙ্গে যুক্ত,  সেই বিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীদের শ্রীহরিকোটায়  উৎক্ষেপণের সময় ডাকা হবে ।  

অটল টিঙ্কারিং ল্যাব এর মাধ্যমে সুকুমার মতি ছাত্র-ছাত্রীদের নিজের হাতে  গবেষণা করার মানসিকতা যেমন তৈরি হবে একই সঙ্গে তাদের উদ্ভাবনী শক্তি বাড়বে । অটল ইনোভেশন মিশন, শিল্পোদ্যোগ ও উদ্ভাবনার মানসিকতা গড়ে তুলতে  নীতি আয়োগ এর সঙ্গে দেশজুড়ে 7000 অটল টিনকেরিং লাব গড়ে তুলেছে,  যেখানে ৩০ লক্ষের বেশি ছাত্র-ছাত্রী,  যারা ষষ্ঠ থেকে  দ্বাদশ শ্রেণিতে পড়ে, তাদের মধ্যে বিভিন্ন সমস্যার সমাধান করা এবং উদ্ভাবনমূলক চিন্তাভাবনার বিকাশ ঘটবে ।

 

ইসরোর সঙ্গে এই বোঝাপড়ার ফলে  ছাত্রছাত্রীরা একবিংশ শতাব্দীতে মহাকাশের সঙ্গে সম্পৃক্ত অত্যাধুনিক প্রযুক্তি সম্পর্কে যেমন ধারণা পাবে,  পাশাপাশি তারা তাত্ত্বিক লেখাপড়ার সঙ্গে প্রয়োগ ভিত্তিক লেখাপড়া করার সুযোগ পাবে ।     

 

নীতি আয়োগের মুখ্য কার্যনির্বাহী আধিকারিক শ্রী অমিতাভ কান্ত বলেছেন এই উদ্যোগের ফলে ইসরোর সাহায্যে অটল ইনোভেশন মিশনের মাধ্যমে মহাকাশ প্রযুক্তির ক্ষেত্র বিকশিত হবে। অটল ইনোভেশন মিশনের ডিরেক্টর শ্রী রামানাথান রামানান বলেছেন অত্যাধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহারের সুযোগ পাওয়ার ফলে  ২০২০-র  জাতীয় শিক্ষানীতির সঙ্গে  এই উদ্যোগ যেমন সাযুজ্য রেখে চলবে,  পাশাপাশি আত্মনির্ভর ভারত গড়ার পথে আরো একধাপ এগোনো যাবে ।

 

ভারতীয় অতি ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প সংস্থা এবং নতুন শিল্পোদ্যোগী সংস্থা গুলির মধ্যে প্রয়োগিক গবেষণা এবং উদ্ভাবনী ক্ষেত্রে উদ্ভাবনের বিকাশ ঘটাতে এর আগে অটল ইনোভেশন মিশন ইসরোর সঙ্গে চুক্তি করেছিল । আত্মনির্ভর ভারত অভিযানের সামিল হওয়ার জন্য ‘অ্যারাইজ- অ্যানিক’ উদ্যোগটি গ্রহণ করা হয়।

***

 

 

CG/CB



(Release ID: 1687780) Visitor Counter : 84