মানবসম্পদবিকাশমন্ত্রক

কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রী শ্রী রমেশ পোখরিয়াল নিশাঙ্ক মাইক্রো সেনসর ভিত্তিক বিস্ফোরক অনুসন্ধানী যন্ত্র ন্যানো স্নিফারের সূচনা করলেন

Posted On: 09 APR 2021 3:03PM by PIB Kolkata

নতুন দিল্লি, ০৯ এপ্রিল, ২০২১

 

কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রী শ্রী রমেশ পোখরিয়াল নিশাঙ্ক বিশ্বের প্রথম মাইক্রো সেনসর ভিত্তিক বিস্ফোরক অনুসন্ধানী যন্ত্র ন্যানো স্নিফারের সূচনা করলেন । এটি তৈরি করেছে আইআইটি বোম্বেতে লালিত স্টার্টআপ ন্যানো স্নিফ টেকনোলজিস । আইআইটি দিল্লির অধিকর্তা শ্রী ভি রামগোপাল রাও এবং মন্ত্রকের বরিষ্ঠ আধিকারিকরাও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন । 

ন্যানো স্নিফারের বিপণন করছে বেহান্ত টেকনোলিস্ট যেটি আইআইটি দিল্লির লালিত প্রাক্তন স্টার্টআপ কৃত্তিকাল সলিউশনসের শাখা । 

অনুষ্ঠানে শ্রী পোখরিয়াল বলেন যে, ন্যানো স্নিফ টেকনোলজিসের তৈরি ন্যানো স্নিফার প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদীর আত্মনির্ভর ভারত স্বপ্নের দিকে একটি পদক্ষেপ । এটি ১০০ শতাংশ ভারতে তৈরি । গবেষণা, উন্নয়ন এবং উৎপাদন হয়েছে ভারতে । ন্যানো স্নিফারের মূল প্রযুক্তিটি আমেরিকা এবং ইউরোপে পেটেন্টকৃত । মন্ত্রী আরও বলেন, যে এই সুলভ যন্ত্রটি আমদানি করা বিস্ফোরক অনুসন্ধানী যন্ত্রের ওপর নির্ভরতা কমাবে । এটি উৎসাহ দেবে অন্যান্য সংস্থা, স্টার্টআপ এবং মাঝারি শিল্পগুলিকে দেশজ পণ্য নিয়ে গবেষণা ও তৈরি করতে । তিনি আরও বলেন, গবেষণাগার থেকে বাজারের এটি একটি উত্তম উদাহরণ । 

মন্ত্রী বলেন যে, এই দেশে তৈরি বিস্ফোরক অনুসন্ধানী যন্ত্র ন্যানো স্নিফার ১০ সেকেন্ডেরও কম সময়ে বিস্ফোরক চিহ্নিত করতে পারে এবং বিভিন্ন শ্রেণীর বিস্ফোরক চিনতে পারে । এটি সামরিক, চিরাচরিত এবং দেশী বিস্ফোরক খুঁজে বার করতে পারে । ন্যানো স্নিফার দৃশ্য, শ্রাব্য, সতর্কতা জানাতে পারে সূর্যের আলোয় পড়া যায় এমন রঙিন ডিসপ্লে-তে । 

কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রী বলেন যে, এই যন্ত্রটি তৈরির সঙ্গে সঙ্গে আইআইটি বম্বে এবং আইআইটি দিল্লি এবং তাদের শাখা সংস্থাগুলি আন্তরিক প্রয়াস চালাচ্ছে উন্নত সুলভ দেশজ পণ্য নিয়ে জাতীয় নিরাপত্তা বাড়াতে । শিক্ষা এবং শিল্পের সংযোগের এটি নিখুঁত উদাহরণ । যা ভারতে অন্যান্য স্টার্ট আপের সামনে একটি উদাহরণ । আমাদের দেশ মেধা, জ্ঞান ও পরিশ্রমী উদ্যোগপতিতে ভর্তি । সেই জন্য কেন আমরা বিদেশী পণ্য আমদানি করব । এটা চমৎকার বিষয়, যে বর্তমানে আমাদের দেশ বিস্ফোরক অনুসন্ধানী যন্ত্র ন্যানো স্নিফারের মতো যন্ত্র তৈরি করছে । 

ভু-রাজনৈতিক বাস্তবতার জন্য দেশের সামনে নিয়মিত সমস্যা এসে হাজির হচ্ছে । তাই বিমানবন্দর, রেল ও মেট্রো স্টেশন, হোটেল, মল এবং অন্য প্রকাশ্য স্থানে বিস্ফোরক এবং বেআইনি দ্রব্য অনুসন্ধান এখন স্বাভাবিক হয়ে গেছে । ওইসব জায়গাগুলিতে মানুষ এবং মালপত্রের দ্রুত স্ক্যানিং-এর জন্য উন্নত অনুসন্ধান যন্ত্র ব্যবহার করা হচ্ছে । এর বেশিরভাগ যন্ত্রই বেশি দাম দিয়ে আমদানি করা । যার ফলে দেশের মূল্যবান বিদেশী মুদ্রার ক্ষতি হচ্ছে । এই সব দ্রব্যের সঠিক পরিবর্ত ন্যানো স্নিফার । 

ন্যানো স্নিফ টেকনোলজিস, বেহান্ত টেকনোলজিসের সঙ্গে একযোগে কাজ করেছে । ন্যানো স্নিফার বিস্ফোরকের ন্যানোগ্রাম পরিমাণও চিহ্নিত করতে পারে এবং মুহূর্তের মধ্যে ফল জানাতে পারে । একাধিক শ্রেণীর বিস্ফোরক সঠিক ভাবে চিহ্নিত করতে পারে এটি । অ্যালগরিদমের পরবর্তী বিশ্লেষণ বিস্ফোরকের প্রকৃত শ্রেণী বিভাগ করতে সাহায্য করে । এমইএমএস সেন্সর সহ স্থানীয়ভাবে উৎপাদন হওয়ায় এটি দেশের আমদানি খরচ অনেকটা কমাবে । 

ন্যানো স্নিফার সফলভাবে পুণেতে অবস্থিত ডিআরডিও-র হাই এনার্জি মেটিরিয়ালস্ রিসার্চ ল্যাবরেটরি পরীক্ষায় পাশ করেছে ।  দেশের সর্বোচ্চ সন্ত্রাস বিরোধী বাহিনী ন্যাশনাল সিকিওরিটি গার্ড – এনএসজিও এটির পরীক্ষা করেছে । 

 

CG/AP/RAB



(Release ID: 1710790) Visitor Counter : 210