কেন্দ্রীয়মন্ত্রিসভা

ব্যাঙ্ক বহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠান/আবাসন অর্থ সহায়তা সংস্থাগুলির লিক্যুইডিটি বাবদ আর্থিক বোঝা কমাতে মন্ত্রিসভা বিশেষ লিক্যুইডিটি কর্মসূচিতে অনুমোদন দিল

Posted On: 20 MAY 2020 2:19PM by PIB Kolkata

নয়াদিল্লি, ২০ মে, ২০২০

 

 


প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদীর পৌরহিত্যে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা ব্যাঙ্ক বহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠান/আবাসন অর্থ সহায়তা সংস্থাগুলির জন্য কেন্দ্রীয় অর্থ মন্ত্রকের পক্ষ থেকে যে নতুন লিক্যুইডিটি কর্মসূচি চালুর প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল, আজ তা অনুমোদন করেছে। নতুন এই কর্মসূচি চালুর উদ্দেশ্য হ’ল – ব্যাঙ্ক বহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠান এবং আবাসন অর্থ সহায়তা সংস্থাগুলির লিক্যুইডিটি বা নগদ অর্থের যোগান বাড়ানো।


নতুন এই কর্মসূচি রূপায়ণে সরকারের খরচ ধরা হয়েছে ৫ কোটি টাকা। এই অর্থ স্পেশাল পার্পাস ভেহিকেল বা বিশেষ উদ্দেশ্য-সাধক কর্মসূচির ক্ষেত্রে আর্থিক সহায়তায় কাজে লাগানো হবে। এই ৫ কোটি টাকা খরচ ছাড়া সংশ্লিষ্ট কর্মসূচিটি রূপায়ণে সরকারের অন্য কোনও খরচ নেই। লিক্যুইডিটি বা নগদ অর্থের যোগানের ক্ষেত্রে ব্যাঙ্ক বহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও আবাসন অর্থ সহায়তা সংস্থাগুলির জন্য গ্যারান্টি মানি হিসাবে সর্বোচ্চ সীমা স্থির হয়েছে ৩০ হাজার কোটি টাকা।


সরকারের পক্ষ থেকে বিশেষ অর্থ যোগান কর্মসূচির মাধ্যমে ব্যাঙ্ক বহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠান এবং আবাসন অর্থ সহায়তা সংস্থাগুলির নগদের অভাব মেটাতে একটি ফ্রেমওয়ার্ক গঠনের প্রস্তাব করা হয়েছে। বিশেষ এই কর্মসূচির মাধ্যমে ব্যাঙ্ক বহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলির নিজস্ব সম্পদ তহবিল খাতে অর্থের যে ঘাটতি রয়েছে, তা মেটানোর চেষ্টা করা হবে। সংস্থাগুলির সিকিউরিটির ব্যবস্থা করবে কেন্দ্রীয় সরকার এবং এই সিকিউরিটি বাবদ জমাকৃত অর্থ ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্কের হেফাজতে থাকবে। সমগ্র কর্মসূচিটি পরিচালনা করবে আর্থিক পরিষেবা দপ্তর। দপ্তরের পক্ষ থেকে শীঘ্রই কর্মসূচি সংক্রান্ত বিস্তারিত নীতি-নির্দেশিকা জারি করা হবে। উল্লেখ করা যেতে পারে, ২০২০-২১ – এর বাজেটে ব্যাঙ্ক বহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠান এবং আবাসন অর্থ সহায়তা সংস্থাগুলির জন্য অতিরিক্ত নগদ চাহিদা মেটাতে বিশেষ কর্মসূচি গ্রহণ করা হবে। কেন্দ্রীয় সরকার এবং রিজার্ভ ব্যাঙ্কের পক্ষ থেকে এখনও পর্যন্ত নগদের চাহিদা মেটাতে যে সমস্ত পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে, তার পাশাপাশি, বিশেষ এই লিক্যুইডিটি সংক্রান্ত কর্মসূচিটি পরিপূরক হিসাবে কাজ করবে। তাই মনে করা হচ্ছে, এই কর্মসূচিটি কার্যকর হলে ব্যাঙ্ক বহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠান/আবাসন অর্থ সহায়তা সংস্থা/মিউচ্যুয়াল ফান্ড প্রতিষ্ঠানগুলির ঋণ প্রদান ক্ষমতা বৃদ্ধি পেলে তা অর্থনীতির গতি ত্বরান্বিত করতে সহায়ক হবে।

 

 


CG/BD/SB



(Release ID: 1625932) Visitor Counter : 197