প্রতিরক্ষামন্ত্রক

প্রতিরক্ষা মন্ত্রী ডিআরডিও ডেয়ার টু ড্রিম ২.০ এবং তরুণ বিজ্ঞানী পুরস্কার প্রদান করেছেন

Posted On: 04 OCT 2021 3:17PM by PIB Kolkata

নয়াদিল্লি, ৪ঠা অক্টোবর , ২০২১

 

প্রতিরক্ষা মন্ত্রী শ্রী রাজনাথ সিং নতুন দিল্লিতে আজ প্রতিরক্ষা গবেষণা ও উন্নয়ন সংস্থার ডেয়ার টু ড্রিম ২.০ প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের পুরস্কৃত করেছেন। ৪০ জনকে অনুষ্ঠানে পুরস্কৃত করা হয়। ব্যক্তিগত বিভাগে ২২ জন এবং নতুন উদ্যোগ বা স্টার্ট আপ সংস্থাগুলি থেকে ১৮টি পুরস্কার দেওয়া হয়েছে। মন্ত্রী উদ্ভাবকদের উৎসাহিত করতে ডেয়ার টু ড্রিম ৩.০ – এর সূচনাও করেছেন। 

ভারতের শিক্ষাবিদ, ব্যক্তি-বিশেষ এবং স্টার্টআপ সংস্থাগুলিকে প্রতিরক্ষা ও বিমানবাহিনীর বিভিন্ন প্রযুক্তির বিষয়ে উৎসাহিত করার জন্য ডিআরডিও ডেয়ার টু ড্রিম প্রতিযোগিতার আয়োজন করে। টেকনোলজি ডেভেলপমেন্ট ফান্ড থেকে এই প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের পুরস্কৃত করা হয়। মন্ত্রী ২০১৯ সালের ডিআরডিও তরুণ বিজ্ঞানী পুরস্কারও এই অনুষ্ঠানে প্রদান করেছেন। ৩৫ বছরের কম বয়সী বিজ্ঞানীরা তাঁদের গবেষণার জন্য এই পুরস্কার পেয়ে থাকেন। মন্ত্রী পুরস্কার বিজেতাদের অভিনন্দন জানিয়ে বলেন, নতুন কিছু করার মানসিকতা থেকে তরুণ প্রজন্ম বিভিন্ন গবেষণাধর্মী কাজ করেন। তাঁদের যুগান্তকারী গবেষণাগুলি উদ্ভাবন সহায়ক হয়। প্রতিরক্ষা মন্ত্রী বলেন, শক্তিশালী ও আত্মনির্ভর নতুন ভারত গড়তে সকলের সমন্বিত উদ্যোগের প্রয়োজন। ভারতের অভিজ্ঞতা ও সংস্কৃতি বহু প্রাচীণ। এদেশের মোট জনসংখ্যার ৬০ শতাংশই তরুণ প্রজন্মের। তিনি যুবসম্প্রদায়কে পারিপার্শ্বিক সবকিছু ভালোভাবে দেখতে, শিখতে ও নতুন নতুন উদ্ভাবনের পরামর্শ দেন। 

বেসরকারি প্রতিষ্ঠানগুলির আত্মনির্ভর ভারত অভিযানে অংশগ্রহণ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বলে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বে সরকার বেশ কিছু উল্লেখযোগ্য পদক্ষেপ নিয়েছে। এর ফলে, দেশে বেসরকারি সংস্থাগুলি প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে অংশীদারিত্ব বাড়াচ্ছে। এ প্রসঙ্গে তিনি ২০২০-র প্রতিরক্ষা অধিগ্রহণ প্রক্রিয়ার উল্লেখ করেন। প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রের আধুনিকীকরণ, প্রত্যক্ষ বিদেশি বিনিয়োগ বৃদ্ধি, ভারতে তৈরি প্রতিরক্ষা সামগ্রী ব্যবহারে উৎসাহদান সহ বিভিন্ন উদ্যোগের কথা বিস্তারিতভাবে শ্রী সিং জানিয়েছেন। ডিআরডিও-র আত্মনির্ভর ভারত অভিযানে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকার কথা উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, সশস্ত্র বাহিনী দক্ষতা ও ক্ষমতা বৃদ্ধির সঙ্গে এই সংস্থার গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। এ প্রসঙ্গে তিনি হাল্কা যুদ্ধ বিমান এমকে ওয়ান এ, অর্জুন ট্যাঙ্ক এবং মাঝারি পাল্লার ক্ষেপণাস্ত্রের সামরিক বাহিনীতে অন্তর্ভুক্তির প্রসঙ্গ উল্লেখ করেন। অনুষ্ঠানে ডিআরডিও উদ্ভাবিত তিনটি ব্যবস্থাপনা সামরিক বাহিনীর কাছে হস্তান্তরিত করা হয়। এগুলি হ’ল – এআরআইএনসি ৮১৮ ভিডিও প্রসেসিং অ্যান্ড স্যুইচিং মডিউল, সোনার পারফরম্যান্স মডেলিং সিস্টেম এবং বুন্ড ব্লাস্টিং ডিভাইস এমকে-২। ডিআরডিও-র নির্দেশকদের দু’দিনের কনক্লেভ আজ শেষ হয়েছে। অনুষ্ঠানে শিল্প সংস্থা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলির সঙ্গে একযোগে বিভিন্ন উদ্ভাবন ও গবেষণামূলক কাজের বিষয়ে আলোচনা করা হয়। 

 

CG/CB/SB



(Release ID: 1760948) Visitor Counter : 306