অর্থমন্ত্রক

বিদেশ থেকে দান করা কোভিড-১৯ বিশেষ ত্রাণ সামগ্রী আমদানিতে আইজিএসটি থেকে থোক ছাড়

Posted On: 03 MAY 2021 9:26PM by PIB Kolkata

নয়াদিল্লী, ৩ মে, ২০২১

কোভিড-১৯ অতিমারীর পরিপ্রেক্ষিতে কেন্দ্রীয় সরকার কিছু সময়ের জন্য বেশকিছু কোভিড-১৯ সংক্রান্ত ত্রাণ সামগ্রী আমদানির ওপর মূল সীমান্ত শুল্ক এবং/অথবা স্বাস্থ্য সেস ছাড় দেওয়ার বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে। এগুলি হল-
ক্রমিক সংখ্যা    বিজ্ঞপ্তি    উদ্দেশ্য
১.২৭.২০২১- কাস্টমস তাং ২০.৪.২১ (নং২৯.২২.২০২১-কাস্টমস তাং ৩০.৪.২১-এর বিজ্ঞাপিত সংশোধনী অনুযায়ী)    রেমডেসিভির ইঞ্জেকশন/এপিআই এবং বেটা সাইক্লোডেক্সট্রিন (এসবিইবিসিবি), ইনফ্ল্যামেটরি ডায়াগনস্টিক (মার্কারস)কিট ২০২১এর ৩১ অক্টোবর পর্যন্ত
২.২৮/২০২১- কাস্টমস তাং ২৪.৪.২১    মেডিকেল গ্রেড অক্সিজেন, অক্সিজেন থেরাপি সংক্রান্ত যন্ত্রপাতি যেমন অক্সিজেন কনসেনট্রেটর, ক্রায়োজেনিক ট্রান্সপোর্ট ট্যাঙ্ক ইত্যাদি এবং কোভিড-১৯ টিকা ৩১ জুলাই ২০২১ পর্যন্ত
কেন্দ্রীয় সরকার একাধিক প্রস্তাব পেয়েছে ভারতের বাইরের দাতব্য সংস্থা, কর্পোরেট সংস্থা এবং অন্যান্য সংস্থার কাছ থেকে যারা কোভিড-১৯ ত্রাণ সামগ্রী (ইতিমধ্যে সীমাশুল্ক ছাড়প্রাপ্ত)আমদানিতে আইজিএসটি থেকে যেগুলি ভারতের বাইরে থেকে বিনামূল্যে পাওয়া গেছে বিনামূল্যে বিতরণের জন্য। সেইমতো কেন্দ্রীয় সরকার ৪/২০২১ নং তাং ৩মে ২০২১ থোক ছাড় সংক্রান্ত আদেশ মোতাবেক এই ধরনের সামগ্রী আমদানির ওপর যেগুলি বিনামূল্যে পাওয়া গেছে বিনামূল্যে বিতরণের জন্য কোভিড ত্রাণে আইজিএসটি থেকে ছাড় অনুমোদন করেছে।
এই ছাড় বহাল থাকবে ২০২১এর ৩০ জুন পর্যন্ত। এটি প্রযোজ্য হবে সেইসব সামগ্রীর ক্ষেত্রেও যেগুলি ইতিমধ্যেই আমদানি করা হয়েছে কিন্তু আজ ছাড়ের বিজ্ঞপ্তি জারি পর্যন্ত শুল্ক বিভাগ থেকে ছাড়ানো হয়নি সেগুলিও।
এই ছাড় পেতে নিম্নলিখিত শর্ত প্রযোজ্য হবে :
১. রাজ্য সরকার একজন নোডাল অথরিটি রাজ্যে নিয়োগ করবে এই ছাড়ের জন্য। কেন্দ্রীয় পণ্য ও পরিষেবা কর আইন ২০১৭-র ২(১০৩) ধারা অনুযায়ী রাজ্যের মধ্যে পড়ছে আইনসভা সভা সহ কেন্দ্রীয় অঞ্চলও।
২. যে নোডাল অথরিটি নিযুক্ত হবে সেই যেকোন সংস্থা, ত্রাণ সংস্থা অথবা বিধিবদ্ধ সংস্থাকে এইসব কোভিড ত্রাণ সামগ্রী বিনামূল্যে বিতরণের জন্য বাছাই করতে পারে।
৩. যে পণ্যের কথা বলা হল সেগুলি আমদানি করা যেতে পারে বিনামূল্যে রাজ্য সরকারগুলি অথবা যেকোন সংস্থা/ত্রাণ সংস্থা/বিধিবদ্ধ সংস্থা যাকে বেছে নেওয়া হয়েছে ভারতের যেকোন জায়গায় বিনামূল্যে বিতরণের জন্য।
৪. আমদানিকারককে শুল্ক বিভাগ থেকে মাল ছাড়ানোর আগে সংশ্লিষ্ট নোডাল অথরিটির কাছ থেকে শংসাপত্র দাখিল করতে হবে এই মর্মে যে এই সামগ্রী কোভিড ত্রাণের জন্য বিনামূল্যে বিতরণের জন্য ।
৫. আমদানির পর আমদানিকারককে আমদানির তারিখ থেকে অথবা নির্ধারিত সেই সময় যা ৯ মাসের বেশি নয় তারমধ্যে বন্দরের ডেপুটি অথবা অ্যাসিস্ট্যান্ট কমিশনার অফ কাস্টমসকে সাধারণ বিবৃতি জমা দিতে হবে যাতে লেখা থাকবে বিনামূল্যে আমদানিকৃত বিনামূল্যে বিতরণের জন্য সামগ্রীর বিবরণ। ওই বিবৃতি সংশিত হতে হবে রাজ্য সরকারের নোডাল অথরিটির দ্বারা।
এই ছাড়ের ফলে ২০২১ ৩০ জুন পর্যন্ত আইজিএসটি না দিয়েই বিনামূল্যে বিতরণের জন্য বিদেশ থেকে বিনামূল্যে পাওয়া ত্রাণ সামগ্রী আনা যাবে।
যেহেতু সীমাশুল্ক ছাড় দেওয়া হয়েছে তাই এই আমদানিগুলিতে কোনরকম সীমাশুল্ক বা আইজিএসটি দিতে হবেনা।

SC/AP/NS



(Release ID: 1715785) Visitor Counter : 75


Read this release in: English