তথ্যওসম্প্রচারমন্ত্রক

কমিউনিটি রেডিও চালাতে ৮৯.৬ এবং ৯০.০ মেগাহার্ৎজ-এর দুটি অতিরিক্ত ফ্রিকোয়েন্সি বরাদ্দ করল টেলিকম দপ্তর

Posted On: 29 AUG 2019 5:09PM by PIB Kolkata

নয়াদিল্লি, ২৯ অগাস্ট, ২০১৯

 

 

 

নতুন দিল্লিতে ডঃ বি আর আম্বেদকর ভবনে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রক আয়োজিত তিনদিনের সপ্তম জাতীয় কমিউনিটি রেডিও সম্মেলন আজ শেষ হল। সমাপ্তি ভাষণে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের সচিব শ্রী অমিত খারে জানান, কমিউনিটি রেডিও স্টেশনগুলি চালানোর জন্য ৮৯.৬ এবং ৯০.০ মেগাহার্ৎজ-এর দুটি অতিরিক্ত ফ্রিকোয়েন্সি বরাদ্দ করতে রাজি হয়েছে টেলিকম দপ্তর। তিনি আরও ঘোষণা করেন, প্রিন্ট এবং ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ায় বিজ্ঞাপনের হার সম্প্রতি বৃদ্ধি পাওয়ায় কমিউনিটি রেডিও-র বিজ্ঞাপনের হার আগামী দু’মাসের মধ্যে পর্যালোচনা করবে ব্যুরো অফ আউটরিচ অ্যান্ড কমিউনিকেশন।

 

শ্রী খারে আরও ঘোষণা করেন, মন্ত্রক একটি কমিউনিটি রেডিও সেল গঠন করবে যার কাজ হবে সংশ্লিষ্ট সকলের পরামর্শ এবং অভিযোগের নিষ্পত্তি করা। তিনি আরও বলেন, সরকারের সব মন্ত্রকেরই উচিৎ গভীরতর অঞ্চলে পৌঁছতে কমিউনিটি রেডিও-কে তাদের পরিকল্পনার অন্তর্ভুক্ত করা। তিনি আরও বলেন, সারা দেশে কমিউনিটি রেডিও স্টেশনগুলিতে চালু কার্যক্রমের যে সূচি সম্মেলনের দ্বিতীয় দিনে প্রকাশ করেছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী শ্রী প্রকাশ জাভড়েকর, সেগুলি সব জেলাশাসককে দেওয়া হবে যাতে তিনি তাঁদের স্থানীয় যোগাযোগের ক্ষেত্রে কমিউনিকেশন রেডিও-র উপযোগিতা সম্পর্কে সকলকে সচেতন করতে পারেন।

 

শ্রী খারে আরও বলেন, জাতীয় সম্মেলন এবার থেকে প্রতি বছর আয়োজিত হবে। পাশাপাশি, দেশের প্রতিটি কোণে আঞ্চলিক সম্মেলনেরও আয়োজন করা হবে। মন্ত্রকের লক্ষ্য প্রতিটি জেলায় অন্তত একটি কমিউনিটি রেডিও স্টেশন করা জানিয়ে শ্রী খারে বলেন, দেশে কমিউনিটি রেডিও আন্দোলন ছড়িয়ে পড়বে তাঁর আশা।

 

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের অতিরিক্ত সচিব শ্রী অতুল কুমার তিওয়ারি বলেন, কমিউনিটি রেডিও-র এই প্রাণবন্ত উন্নত সংস্কৃতি তৃণমূল স্তরে তথ্য পৌঁছে দিতে সাহায্য করবে যা মানুষের ক্ষমতায়নে সাহায্য করবে। তিনি সম্মেলনে তিনদিনের অধিবেশন সম্পর্কে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন এবং অনুষ্ঠানে যোগদানকারী সকলকে ধন্যবাদ জানান।

 

 

 

CG/AP/DM



(Release ID: 1583492) Visitor Counter : 130


Read this release in: English