আয়ুষ

বিশ্ব হোমিওপ্যাথি দিবস উপলক্ষে বৈজ্ঞানিক সম্মেলনের সূচনা

Posted On: 09 APR 2019 6:18PM by PIB Kolkata

নয়াদিল্লি, ০৯ এপ্রিল, ২০১৯

 

বিশ্ব হোমিপ্যাথি দিবস উপলক্ষে আজ নতুন দিল্লিতে দু’দিনের এক সম্মেলনের উদ্বোধন করেছেন আয়ুষ মন্ত্রকের সচিব ডঃ বৈদ্য রাজেশ কোটেচা। প্রতি বছর হোমিওপ্যাথির জনক ডঃ ক্রিশ্চিয়ান ফ্রেড্রিক হ্যানিম্যানের জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে বিশ্ব হোমিওপ্যাথি দিবস উদযাপন করা হয়ে থাকে।

 

সম্মেলনের উদ্বোধন করে ডঃ কোটেচা আয়ুষের বিভিন্ন ক্ষেত্রে গবেষণার কাজে বিজ্ঞান ও ঐতিহ্যের মধ্যে সেতুবন্ধ রচনার লক্ষ্যে মন্ত্রকের বিভিন্ন উদ্যোগের কথা তুলে ধরেন। তিনি বলেন, আয়ুষ মন্ত্রক সুনির্দিষ্ট গবেষণা, উৎপাদন এবং উৎপাদিত ওষুধপত্রের মানোন্নয়ন এবং হোমিওপ্যাথি কলেজগুলিতে উচ্চ মানের শিক্ষার মাধ্যমে হোমিওপ্যাথিকে স্বীকৃতি দেওয়ার লক্ষ্যে কাজ করে চলেছে। তিনি বলেন, আয়ুষ মন্ত্রক কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মসূচি হিসাবে হোমিওপ্যাথিকে তুলে ধরার উদ্যোগ নিয়েছে। এছাড়া, হোমিওপ্যাথি বিষয়ে উদ্যোগও নেওয়া হয়েছে। তিনি হোমিওপ্যাথি ওষুধপত্র ও পণ্যদ্রব্যের নিরাপত্তা ও গুণমান নিশ্চিত করে এই চিকিৎসাবিদ্যার বিশ্বাসযোগ্যতা গড়ে তোলার ওপর জোর দেন। অনুষ্ঠানে হোমিওপ্যাথি গবেষণার কেন্দ্রীয় পর্ষদের মহানির্দেশক ডঃ রাজ কে মনচন্দা হোমিওপ্যাথি ক্ষেত্রে শিক্ষা এবং গবেষণার মধ্যে যোগসূত্র গড়ে তোলার ওপর জোর দেন। আয়ুষ মন্ত্রকের যুগ্মসচিব শ্রী রোশন জাগ্‌গি হোমিওপ্যাথি ক্ষেত্রে শিক্ষক ও বিজ্ঞানীদের মধ্যে সমন্বয়সাধনের কথা বলেন। ছাত্রছাত্রীদের মধ্যে গবেষণায় উৎসাহদানের লক্ষ্যে কেন্দ্রীয় হোমিওপ্যাথি গবেষণা পর্ষদের উদ্যোগে এমডি ছাত্রছাত্রীদের জন্য বৃত্তি কর্মসূচির কথা তুলে ধরেন। এছাড়া, ডেঙ্গু, চিকুনগুনিয়া ইনফ্লুয়েঞ্জা, যক্ষ্মা এবং অন্যান্য সংক্রামক রোগের চিকিৎসা বিষয়ে হোমিওপ্যাথি ক্ষেত্রে গবেষণার জন্য হায়দরাবাদের জেএসপিএস গভর্নমেন্ট হোমিওপ্যাথি কলেজের সঙ্গে আয়ুষ নির্দেশনালয় সমঝোতা স্মারকের কথাও তুলে ধরা হয়।

 

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে হোমিওপ্যাথি চিকিৎসার ক্ষেত্রে আজীবন কাজের স্বীকৃতিতে ডঃ রমনলাল পি প্যাটেল’কে পুরস্কৃত করা হয়। এছাড়া, বিশিষ্ট শিক্ষক ডঃ রবি এম নায়ার’কে আজীবন কাজের স্বীকৃতিতে ২০১৯ সালে পুরস্কার দেওয়া হয়। অনুরূপভাবে, শ্রেষ্ঠ গবেষক হিসাবে আজীবন কাজের স্বীকৃতিতে অধ্যাপক ডঃ কঞ্জাক্ষ ঘোষ’কে পুরস্কৃত করা হয়। ২০১৯-এর হোমিওপ্যাথি সংক্রান্ত শ্রেষ্ঠ গবেষণাপত্রের জন্য ডঃ তাপস কুন্ডুকে এবং ওষুধপত্র সংক্রান্ত গবেষণার জন্য শ্রীমতী মুনমুন সিনহাকে পুরস্কৃত করা হয়। হোমিওপ্যাথির বিভিন্ন ক্ষেত্রে কাজের স্বীকৃতিতে বেশ কয়েকজনকে যুব বিজ্ঞানী পুরস্কারে ভূষিত করা হয়। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সেন্ট্রাল কাউন্সিল অফ হোমিওপ্যাথির পরিচালক মণ্ডলীর চেয়ারম্যান শ্রী নীলাঞ্জন সান্যাল সহ বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

 

 

CG/PB/SB



(Release ID: 1570331) Visitor Counter : 328


Read this release in: English